Header Ads

সন্তোষ হোজাই খুনের সুবিচার চেয়ে এবার ধরনায় বসতে চলেছে হালালি প্রোগ্রেসিভ ওয়েলফেয়ার সোসাইটি

বিপ্লব দেব, হাফলং ১৫ মেঃ সন্তোষ হোজাই খুনের সুবিচার চেয়ে গনতান্ত্রিক আন্দোলন গড়ে তুলতে ভেঙ্গে দেওয়া ডিমা হালম দাওগা জঙ্গি সংগঠনের সকল প্রাক্তন সদস্যদের বেরিয়ে আসার আহ্বান জানান ডিএইচডি-র প্রাক্তন অধ্যক্ষ তথা হালালি প্রগ্রেসিভ ওয়েলফেয়ার সোসাইটির সভাপতি দিলীপ নুনিসা। সন্তোষ হোজাই খুনের প্রতিবাদে হালালি প্রগ্রেসিভ ওয়েলফেয়ার সোসাইটির ডাকা ৩৬ ঘন্টার ডিমা হাসাও তথা প্রস্তাবিত ডিমারাজি এলাকায় বনধ শান্তিপূর্ণ ভাবে শুক্রবার বিকেল ৫ টায় শেষ হওয়ার পরই দিলীপ নুনিসা ঘোষণা করেন সন্তোষ হোজাই খুনের সুবিচার চেয়ে এবং এই খুনের ঘটনায় অভিযুক্ত ডিএসপি সূর্যকান্ত মরানের গ্রেফতারের দাবিতে এবার হাফলং জেলাশাসকের কার্যালয়ের সামনে অনিৰ্দিষ্টকালের জন্য ধরনায় বসবেন হালালি প্রগ্রেসিভ ওয়েলফেয়ার সোসাইটির সদস্যরা। 

আর এই গণতান্ত্রিক আন্দলোনে জেলার বিভিন্ন দল সংগঠন সামাজিক সংগঠন সহ ছাত্র সংগঠন গুলিকে সামিল হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন দিলীপ নুনিসা। সেই সঙ্গে ডিএইচডি-র সঙ্গে কেন্দ্র ও রাজ্যসরকারের যে সমঝোতাপত্র সাক্ষরিত হয়েছে এর সফল রূপায়নে সরকারের উপর চাপ সৃষ্টি করতে জেলার বিভিন্ন দল সংগঠন সামাজিক সংগঠন ছাত্র সংগঠন সহ সিভিল সোসাইটিকে আহ্বান জানান দিলীপ নুনিসা। তিনি বলেন সরকারের সঙ্গে ডিএইচডির সমঝোতাপত্র সাক্ষরিত হওয়ার আট বছর পেরিয়ে গেলে ও এই সমঝোতাপত্রে লিপিবদ্ধ হওয়া অনেক দফার সফল রূপায়নে সরকার তেমন গুরুত্ব দিচ্ছে না বলে অভিযোগ করেন ডিএইচডি-র প্রাক্তন অধ্যক্ষ দিলীপ নুনিসা। এদিকে সন্তোষ হোজাই খুনের প্রতিবাদে ও ডিএসপি সূর্যকান্ত মরানকে গ্রেফতারের দাবিতে হালালি প্রগ্রেসিভ ওয়েলফেয়ার সোসাইটির আহ্বান করা ৩৬ ঘন্টার বনধকে ডিমা হাসাও জেলা সহ প্রস্তাবিত ডিমারাজি এলাকায় সর্বাত্মক করে তুলার জন্য জেলাবাসীকে ধন্যবাদ জানিয়ে তিনি বলেন সন্তোষ হোজাইর খুনের সুবিচার পেতে জেলার বিভিন্ন দল সংগঠন সামাজিক সংগঠন মহিলা সংগঠন সহ ছাত্র সংগঠন গুলি যে ভাবে হালালি প্রগ্রেসিভ ওয়েলফেয়ার সোসাইটিকে সমর্থন করেছে তারজন্য এদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন দিলীপ নুনিসা।

No comments

Powered by Blogger.