Header Ads

মোদীর সঙ্গে একান্ত সাক্ষাতে সিএএ, এনপিআর বিরোধিতা মমতার !!

বিশ্বদেব চট্টোপাধ্যায়ঃ

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাতের মধ্যেই সিএএ, এনপিআরের নিয়ে রাজ্যের আপত্তির কথা জানালেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। রাজভবনে ১০ মিনিটের কম সময় মোদীর সঙ্গে বৈঠক করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। রাজভবন থেকে বেরিয়ে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে কী আলোচনা হয়েছে তা জানান মমতা। 


সিএএ, এনপিআরের বিরোধিতার পরেও মোদীর সঙ্গে মমতার এই সাক্ষাৎকে সহজে মেনে নেয়নি বিরোধীরা। মমতা দ্বিচারিতা করছেন বলে অভিযোগ করেছে বামেরা। তবে মমতা বরাবরই দাবি করে এসেছেন এটা সৌজন্য সাক্ষাৎকার। রাজ্যে প্রধানমন্ত্রী এলে প্রশাসনিক প্রধান হিসেবে তাঁর দেখা করাটা রাজনৈতিক সৌজন্যের মধ্যে পড়ে। সেটাই করেছেন তিিন। সেকারণেই মোদীর সঙ্গে ১০ মিনিেটরও কম সময়ের সাক্ষাৎপর্বে সিএএ এবং এনপিআরের বিরোধিতা করেছেন তিনি।
মোদীকে মমতা জানিয়েছেন তিনি রাজ্যে সিএএ, এনপিআর চালু করবেন না। এবং এই দুটি প্রত্যাহার করার দাবি জানান মমতা। এই বিষয়ে আলোচনা করার জন্য প্রধানমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে দিল্লিতে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন। দিল্লিতে এই নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করবেন বলে জানিয়েছেন মোদী।
প্রধানমন্ত্রীর কাছে রাজ্যের একাধিক পাওনার কথাও জানিয়েছেন মমতা। তিনি বলেছেন ৫৮ হাজার কোটি টাকা ঋণ শোধ করার পরেও কেন্দ্রের কাছে ২৮ হাজার কোটি টাকা পায় রাজ্য। সেই টাকা এখনও হাতে পায়নি রাজ্য সরকার। এছাড়াও বুলবুলের জন্য ৭ হাজার কোটি টাকা পাওনা রয়েছে কেন্দ্রের কাছে।
মমতার একের পর এক দাবির কথা শোনার পর প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী জানিয়েছেন, রাজ্যের যে দাবি দাওয়া রয়েছে সেগুলি দিল্লিতে ফিরে গিয়ে চিঠি পত্র দেখে জানাবেন। এবং দিল্লিতে গিয়ে এনআরসি এবং সিএএ নিয়ে আলোচনা করবেন বলে জানিয়েছেন।

No comments

Powered by Blogger.