Header Ads

কামাতাপূর উন্নয়ন পরিষদ কোচ রাজবংশী জনগোষ্ঠীর আশা আকাংখ্যা পূরণ করতে পারবে নাঃ বিশ্বজিৎ রায়


প্রস্তাবিত কমতাপুর উন্নয়ন পরিষদ


অমল গুপ্ত গুয়াহাটিঃ অসম সরকার বি টি এ ডি এবং রাভাহাসঙ এলাকাকে বাদ দিয়ে অবিভিক্ত গোয়ালপাড়া জেলায়  বঙ্গায়গাঁও কে সদর করে কোচ রাজবংশী জনগোষ্ঠীর উন্নয়নের লক্ষ্যে কামতা পুর  স্বশাসিত  উন্নয়ন পরিষদ গঠন করলেন। আজ রবিবার দিসপুর প্রেস ক্লাবে কোচ রাজবংশী জাতীয় মহাসভা র সাধারণ সম্পাদক বিশ্বজিৎ রায়  সরকার কামাতাপূর কে স্বীকার করে নেওয়ায় সন্তোষ প্রকাশ করে  বলেন,  সার্বিকভাবে তারা খুশি নয়,  কারণ হিসাবে জানান,   ঐতিহাসিক কোচ রাজবংশী জনগোষ্ঠীর নিজস্ব সোনালী ইতিহাস আছে,   নিজেদের ভৌগলিক সীমানা,  ভাষা কৃষ্টি সংস্কৃতি ছিল, আজ তা প্রায়  ধ্বংস হয়ে গেছে। সোনালি ইতিহাস তুলে ধরে আক্রাসু র প্রাক্তন সভাপতি বিশ্বজিৎ রায় বলেন,1949   তদানীন্তন কোচ রাজা জগদীপেন্দ্র নারায়ণ ভূপ বাহাদুর তদানীন্তন ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী  বল্লভ ভাই  প্যাটেল এর সঙ্গে ভারত ভুক্তির চুক্তি করেছিলেন। কিন্তু ভারত সরকার কোনো শর্তপুরণ করেনি। তিনি জানান কোচবিহার সহ উত্তরবঙ্গে 5 টি জেলা এবং অসমে 21 টি জেলা নিয়ে প্রায় 70 লাখ কোচরাজবংশী র মানুষ আছে, মাত্র 5 লাখ কোচ রাজবংশীর মানুষ কে উন্নয়ন পরিষদ দেওয়া হবে।মাত্র 7 টা বিধানসভা কেন্দ্র,  বনগাইগাঁও, গৌরীপুর, গোলকগঞ্জ,  ওয়েস্ট ও ইস্ট বিলাসিপাড়া এবং  সাউথ ও নর্থ অভয়া পুরী এই 7 টি কেন্দ্রের মধ্যে মাত্র বনগাইগাঁও কেন্দ্রে কোচ রাজ বংশী  জনগোষ্ঠী সংখ্যা গরিস্ট, বি টি এ ডি তে দুই লখ্যাধিক কোচ রাজবংশীর মানুষ আছে। তাদের  মধ্যে লখ্যাধিক মানুষের নাম এন আর সি তালিকায় নেই। এই কথা জানিয়ে বলেন নাম ছুট দের ভোটাধিকার নেই। 2003 সালে বড়ো চুক্তি অনুযায়ী 40 টি আসন যুক্ত  বি টি এ ডি আইন সভায় 30 টি আসন বড়ো জনগোষ্ঠীর জন্যে সংরক্ষিত, বি টি  এ ডি তে অবড়োরা সংখ্যা গরিষ্ঠ, অথচ তাদের কোনো অধিকার নেই, মাত্র 5  টি আসন অবড়ো দের জন্যে সংরক্ষিত, আর 5 টি আসন ওপেন, যে কেউ প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে পারে।  এই অবস্থায়  কোকড়াঝার, চিরাং প্রভৃতি বি টি এ ডি র চার জেলার  কোচ রাজবংশী জনগোষ্ঠীর মানুষ  কামাতাপূর   উন্নয়ন    পরিষদের  কোনও  সাহায্য পাবে না। রায় বলেন ,  সংবিধানের ষষ্ঠ তপশীল এর  অধীনে কামাতাপূর  উন্নয়ন পরিসদ কে আনলে  স্থায়ী  ভাবে  সুবিধা পেত কোচ রাজ বংশীর মানুষ, সাংবিধানিক মান্যতা না    থাকায় যে কোনো  রাজনৈতিক দল খুশি মতো  পরিষদ কে ব্যাবহার করতে পারে।

No comments

Powered by Blogger.