Header Ads

বদরপুরে রেল ডিভিশন খতিয়ে দেখতে আসছে দিল্লির টিম

নয়া ঠাহর প্রতিবেদন  বদরপুর : রেল ডিভিসন স্থাপনের বিষয় খতিয়ে দেখতে ২০২০ - জানুয়ারিতে বদরপুরে আসছেন দিল্লির উচ্চপদস্থরা। বরাকে প্রস্তাবিত রেল ডিভিশন কোথায় হবে শিলচর না বদরপুরে - এ নিয়ে চলছে টানা হ্যাচড়া। রেলের একদল আধিকারিক চাইছেন ডিভিশন শিলচরে হোক। কিন্তু বদরপুরের স্থানীয়রা চাইছেন সমস্ত প্রয়োজনীয় পরিকাঠামো এবং ভৌগলিক সুবিধা থাকায় এটি বদরপুরেই হোক। আর স্থানীয়দের এই দাবির পেছনে যথেষ্ট পোক্ত যুক্তি আছে। সম্প্রতি পিএসি-র সদস্য অমরেশ রায়  দিল্লি রেলভবনে বিভাগীয় উচ্চপদস্থ দের সঙ্গে আলোচনায় বদরপুরে রেল ডিভিশন স্থাপনের স্বপক্ষে যুক্তি তুলে ধরেন।  বদরপুরে রেলের নিজস্ব জমি আছে এক হাজার সাতশো বিঘা। কোয়ার্টার আছে সাতশোটি। 
এই বিশাল পরিকাঠামো ছেড়ে শিলচরে ডিভিশন স্থাপনের পরিকল্পনা কতটা বাস্তব সম্মত প্রশ্ন তুলেন তিনি। শিলচরে এই পরিকাঠামো তৈরি করতে খরচ হবে প্রায় দুই হাজার কোটি টাকা। যেখানে রেল অপ্রয়োজনীয় খরচ কমানোর দিকে মন দিয়েছে সেখানে এই ফালতু খরচের যৌক্তিকতা কোথায়। এছাড়া বদরপুর বরাক উপত্যকার মধ্যে অবস্থিত হওয়ায় পড়শি রাজ্য ত্রিপুরা মিজোরাম মনিপুর সহ বহির্বরাকের সঙ্গে যোগাযোগ সহজ। কাজেই গুটিকয় আধকারিকের আবদার মেটাতে বদরপুরকে বঞ্চিত করে শিলচরে ডিভিশন স্থাপন কতটুকু বাস্তব সম্মত হবে প্রশ্ন তুলেন তিনি। তিনি এলাকায় জনগণের ডিভিশন স্থাপনের দাবিতে প্রায় তিরিশ বছরের আন্দোলনের কথাও উল্লেখ করেন। রেল ভবনের আধিকারিকরা অমরেশ রায়ের কথার যুক্তি মেনে নেন এবং আগামী জানুয়ারির প্রথমেই তাঁদের একটি দল বদরপুরে এসে  এক দিন রাত এখানে থেকে পুরো এলাকা সরজমিনে পরিদর্শন করে রিপোর্ট করবেন বলে অমরেশ রায় একথা জানিয়েছেন।

No comments

Powered by Blogger.