Header Ads

এন আর সি তে নানা অনিয়ম, নানা দুর্নীতি র অভিযোগ তুলে শেষ পযন্ত আসু ও সুপ্রিমকোর্টের দ্বারস্থ হবে






 নয়া ঠাহর, গুয়াহাটি।প্রথম থেকে এনআরসির  সমন্বয়ক প্রতীক হাজেলার পাশে দাঁড়িয়ে ছিলেন,তার সব কাজ চোখ বন্ধ করে সমর্থন করেছিলেন, সেই জাতীয়তাবাদী সংগঠন আসু শেষ পর্যন্ত সুপ্রিমকোর্টের দ্বারস্থ হয়ে এন আর সি র চূড়ান্ত তালিকা নতুন করে রি ভেরিফিকেশন এর দাবি জানাবে।  খিলাঞ্জিয়া রা  বিদেশি ট্রাইব্যুনালের  কাছে যাবে না বলেও দাবি জানানো হয়েছে।  নেহেরু  লিয়াকত , ইন্দিরা  মুজিব চুক্তির আধারে যে সব বাঙলি  হিন্দু সম্প্রদায়ের মানুষ  নির্য্যাতিত হয়ে ,ছিন্ন মূল অবস্থায় অসম , পশ্চিমবঙ্গ  ,ত্রিপুরা সহ  ভারতের    বিভিন্ন  অঞ্চলে এসে স্থায়ী ভাবে বসবাস  করছেন,  এদেশে  এসে  যথারীতি রিফিউজি  সারটি ফিকেট  পেশ করে ছিলো, এন আর সি কর্তৃপক্ষ সেই সারটিফিকেট ও  খারিজ করে দেয়। হিন্দুদের  ত্রান কর্তা বিজেপি সেই বাঙলি হিন্দুদেরও রক্ষা  করতে পারলেন না।  তৃতীয় শক্তির কাছে    মাথা নুইয়ে সেই  পুরোনো  বাসিন্দাদের নাম এন আর সি তালিকা থেকে বাদ  দেওয়া হলো।  বাদ পড়া ১৯ লাখের  মধ্যে প্রায় ১৪ লাখ  বাঙলি   হিন্দু র নাম বাদ পড়েছে বলে   বাঙলি   যুব ছাত্র ফেডারেশন অভিযোগ করেছে।  নেপালি ,হাজং কোচ রাজবংশী প্রভৃতি খিলাঞ্জিয়া  মানুষের নামও বাদ পড়েছে। প্রথম থেকে গুরুত্বপূর্ন  ভূমিকা গ্রহণ করে এ পি ডব্লিউ প্রধান  অভিজিৎ শর্মা  ইতিমধ্যে সুপ্রিমকোর্টের দ্বারস্থ হয়ে   এন আর সি র নানা  দুর্নীতি , বিদেশিদের বহু নাম,   ১৬০০কোটি টাকার   নয় ছয় , দুর্নীতি  তুলে ধরেছে।

No comments

Powered by Blogger.