Header Ads

প্রতিশ্রুতি পালনে ব্যর্থ, তৃণমূলের ঝকঝকে অফিসে তালা ঝুলাল আদিবাসী সমাজ

বিশ্বদেব চট্টোপাধ্যায় : প্রতিশ্রুতি দিয়ে পঞ্চাশ বছরের বেশি সময় ধরে চাষ করে আসা আদিবাসীর জমির দখল নিয়েছিল তৃণমূল কংগ্রেস। সেখানে তৈরি হয় ঝকঝকে পার্টি অফিস। কিন্তু প্রতিশ্রুতির পূরণ হয়নি এই অভিযোগে পশ্চিম মেদিনীপুরের চন্দ্রকোণায় তৃণমূলের পার্টি অফিসে তালা ঝোলাল আদিবাসী সমাজ।
সংবাদ মাধ্যমের কাছে জমির মালিক বিজয় সোরেনের দাবি, একই পরিমাণ অন্য এক জমিতে পাম্প হাউস, পরিবারের একজনকে চাকরির প্রতিশ্রুতি দিয়ে চন্দ্রকোণা শ্রীনগর চৌকানের সড়কের ধারে বহুমূল্যের জমির দখল নিয়েছিল তৃণমূল কংগ্রেস। জমিটি সরকারি খাস জমি হলেও, তাতে বিজয় সোরেনের পরিবার প্রায় পঞ্চাশ বছর ধরে চাষ করে আসছেন বলেও দাবি স্থানীয় সূত্রের। এর মধ্যে কেটে গিয়েছে বেশ কয়েক বছর। কোনও প্রতিশ্রুতির পালন না হলেও, সেই জমিতে তৈরি হয়েছে দোতলার ঝকঝকে পার্টি অফিস।
স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্বকে জানিয়েও কোনও ফল হয়নি বলেও অভিযোগ। তিনি বর্তমানে অন্যের জমিতে চাষ করে সংসার চালান। তৃণমূলের বিরুদ্ধে মিথ্যা প্রতিশ্রুতির দেওয়ার অভিযোগ করেছেন তিনি। 
স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, ভারত জাকাত মাঝি পরগনার স্থানীয় নেতারা সম্প্রতি তৃণমূলের সেই অফিসে গিয়ে তৃণমূলের পতাকা সরিয়ে সংগঠনের হলুদ সবুজ পতাকা লাগিয়ে দেন। সেই সঙ্গে ওই অফিসে তালাও ঝুলিয়ে দেওয়া হয়। আদিবাসী সম্প্রদায়ের নেতারা জানিয়েছেন, আদিবাসী পরিবারকে বঞ্চিত করে পার্টি অফিস হবে, সেটা মানা যায় না।
বিষয়টি নিয়ে অস্বস্তিতে স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্ব। তাদের দাবি, বিজয় সোরেনের পরিবারকে দু কাঠা জমি দেওয়া হয়েছে। সেই জমিতে বাড়ি করে দেওয়া হবে। পাশাপাশি চাকরির বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করা হবে। এপ্রসঙ্গে ভুল বোঝাবুঝি হয়েছিল বলে দাবি জেলা তৃণমূল নেতৃত্বের।

No comments

Powered by Blogger.