Header Ads

পাকিস্তানকে ধমক ট্রাম্পের, কান্নাকাটি না করে ভারতের সাথে দ্বিপাক্ষিক বৈঠক করুন !

বিশ্বদেব চট্টোপাধ্যায় : আমেরিকার রাষ্ট্রপতি ডোনাল্ড ট্রাম্প পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সাথে ফোনে কথা বলেন। ওই কথপোকথনে ভারত আর পাকিস্তানের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক কথাবার্তার মাধ্যমে সমস্যার সমাধান করার পরামর্শ দেন তিনি। ট্রাম্প আর ইমরান খানের মধ্যে এই  কথাবার্তা সংযুক্ত রাষ্ট্রের সুরক্ষা পরিষদের ১৫ জন সদস্য নিয়ে বৈঠক করার আগে হয়। 
ডোনাল্ড ট্রাম্প পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছেন যে, কাশ্মীর ইস্যু নিয়ে তাঁরা নাক গলাবেন না। কাশ্মীর ইস্যুতে আমেরিকার কাছে সংযুক্ত রাষ্ট্রের সমর্থন চাওয়ার জন্যই ইমরান খান ডোনাল্ড ট্রাম্পকে ফোন করেছিলেন।
কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা তুলে দেওয়ার পর থেকেই পাগলের মতো ব্যাবহার করছেন পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। উনি কাশ্মীর মামলায় নিজেদের জন্য সমর্থন জোটানোর জন্য একের পর এক দেশের সাথে কথাবার্তা চালিয়ে যাচ্ছেন। কিন্তু ওনার পাশে কোন দেশই দাঁড়াচ্ছে না। প্রথমে সংযুক্ত রাষ্ট্র, আমেরিকা আর রাশিয়ার পর পাকিস্তানের পরম মিত্র চীনও কাশ্মীর ইস্যুতে পাকিস্তানকে সমর্থন করেছিল না। যদিও পরে পাকিস্তানের করুণ আবেদনে তারা কাশ্মীর ইস্যু সংযুক্ত রাষ্ট্রে তুলেছিল। কিন্তু সেখানে তাদেরও মুখ কালো করে ঘরে ফিরতে হয়। কারণ সংযুক্ত রাষ্ট্রের ওই বৈঠকে চীন ছাড়া কেউ সমর্থন করেনি পাকিস্তানকে।
পাকিস্তান এখন এতটাই ভারত আতঙ্কে ভুগছে যে, পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান পাক অধিকৃত কাশ্মীরে গিয়ে বলেছেন যে, ভারত যখন তখন পাক অধিকৃত কাশ্মীরে অভিযান চালাতে পারে। ভারত কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা তুলে দেওয়ার পর পাক অধিকৃত কাশ্মীর দখল করার জন্য পদক্ষেপ নিতে চলেছে।

No comments

Powered by Blogger.