Header Ads

চিকিৎসার জন্য দূর -দূরান্ত থেকে আসা রোগীদের জন্য শিলং ভারত সেবাশ্রম সংঘ শীঘ্রই যাত্রীনিবাসের উদঘাটন করতে চলেছে।


নয়া ঠাহর প্রতিবেদন শিলং। যে কোনো প্রাকৃতিক দুর্যোগে অথবা দুর্গত মানুষের উদ্ধারের কাজ ও তাদের ত্রাণ সামগ্রী পৌঁছে দিতে সবার আগে পৌঁছে যান ভারত সেবাশ্রম সংঘের সন্ন্যাসী ও স্বেচ্ছাসেবকেরা। এছাড়াও শিক্ষার প্রসার ঘটানো, স্বাস্থ্য সেবা সরবরাহ করা, বৃত্তিমূলক শিক্ষা প্রদান করা এবং অনুন্নত অঞ্চলে বসবাসকারী মানুষদের জীবন যাত্রার মান উন্নয়নে সাহায্য করে ভারত সেবাশ্রম সংঘ।সারাদেশে থেকে তীর্থযাত্রীদের তথা বিশেষ করে অসুস্থ রোগীরা যারা দূর-দূরান্ত থেকে চিকিৎসা করতে আসে তাদের জন্য শিলংয়ের রিঞ্জতে একটি যাত্রীনিবাস তৈরি করা হচ্ছে । এর কাজ প্রায় সম্পূর্ণ হয়ে উঠছে আগামী মাসে এই যাত্রী নিবাসটি যাত্রীদের জন্য খুলে দেওয়া হবে।এক বিজ্ঞপ্তি দ্বারা এ কথা জানান শিলং ভারত সেবাশ্রম সংঘের সেক্রেটারি স্বামী পূর্ণব্রতানন্দ মহারাজ। এতে দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আসা যাত্রীদের অল্প হলেও স্বস্তি দেবে বলে তিনি আশা করেন । এ প্রসঙ্গে তিনি আরো বলেন যে  ভারত সেবাশ্রম সংঘ প্রাকৃতিক দুর্যোগের সময় সব সময় অসহায় মানুষদের পাশে গিয়ে দাঁড়ায়। কিছুদিন আগেও যে উড়িষ্যাতে ফনির তান্ডব হয়েছিল সেখানেও  ভারত সেবাশ্রম সংঘ আর্তদের পাশে গিয়ে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছিল।  এ প্রসঙ্গে স্বামী পূর্ণব্রতানন্দ মহারাজ বলেন যে   ভারত সেবাশ্রম সংঘ থেকে মেঘালয় বিভিন্ন স্থানে ও নিকটবর্তী  আসামের কার্বি আংলং পাহাড়ের এলাকাতে আর্থিকভাবে দুর্বল লোকদের মাঝে  মশারী বিতরন করবে। উল্লেখ্য যে শিলং জেল রোড স্থিত  ভারত সেবাশ্রম সংঘে পাঁচ দিবাসীয় যোগ শিবির সম্পন্ন হয় খুব সম্প্রতি । এই শিবিরে যোগাতে  বিশেষ প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত হরিদ্বারের পতঞ্জলি যোগ পীঠের স্বামী রামদেবজী এবং ভারত সেবাশ্রম সংঘ কলকাতা হেডকোয়ার্টারের প্রবীণ সন্ন্যাসী প্রণবানন্দ মহারাজের তত্ত্বাবধানে প্রতিদিনই সকাল ৫ টা  থেকে ৭টা এবং বিকেল ৫ টা থেকে ৬.৩০টা পর্যন্ত হয় । এক্ষেত্রে মহিলাদের জন্য বিশেষ ব্যবস্থা করা হয়েছিল ।কলকাতার যোগা এক্সপার্ট প্রতিমা দেবীর তত্ত্বাবধানে মহিলাদের যোগ শিবির সম্পন্ন হয়। ভারত সেবাশ্রমের সেক্রেটারি মহারাজ স্বামী বিশ্বাত্মানন্দ মহারাজজীর নির্দেশনায় এই যোগা শিবির সম্পন্ন হয়।

No comments

Powered by Blogger.