Header Ads

অম্বুবাচী মেলা উপলক্ষে কামাখ্যা মন্দিরের নিরাপত্তা ব্যবস্থা খতিয়ে দেখলেন মুখ্যমন্ত্ৰী

 
২২ জুন  অম্বুবাচী মেলায় ২০ লক্ষাধিক ভক্তের সমাবেশ ঘটবে
অমল গুপ্ত, গুয়াহাটিঃ 

দেশের অন্যতম পবিত্র তীর্থ ক্ষেত্র, তীর্থ চূড়ামনি বলে খ্যাত  অসমের কামাখ্যা ধামে আগামী ২২ জুন থেকে শুরু হবে অম্বুবাচী মেলা। চলবে ২৬ জুন পৰ্যন্ত। ইতিমধ্যে সারা দেশ থেকে ভক্ত প্রাণ মানুষ আসতে শুরু করেছে, কয়েক হাজার সাধু সন্ত ভিড় জমিয়েছে নীলাচল পাহাড়ের মাথায়। 

 উত্তর পূর্বাঞ্চলের সিংহদুয়ার গুয়াহাটি মহানগরের কোলে ব্রহ্মপুত্র নদকে গলার মালার মতো জড়িয়ে রেখেছে সবুজ ঢাকা মনোরম প্রাকৃতিক পরিবেশে নিলাচল পাহাড়ের মা কামাখ্যা। যার আশির্বাদ নেবার জন্যে সারা দেশ অধীর আগ্রহের সঙ্গে প্রতীক্ষা করে অম্বুবাচী মেলার বিশেষ দিনগুলির জন্যে।  মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দ সনওয়াল মঙ্গলবার কামাখ্যা মন্দিরে এসে পুজো দেন, এবং রাজ্যবাসীর মঙ্গল কামনা করেন। তিনি বলেন, সারা ভারতের সমাজ জীবনে মা কামাখ্যার প্রতি এক বিশেষ শ্রদ্ধা ভক্তি আছে।  তাই লাখ লাখ ভক্ত এখানে ছুটে আসেন,মা কামাখ্যার আশীর্বাদ গ্রহণ করেন। অম্বুবাচী মেলার দিনগুলিতে যাতে লাখ লাখ ভক্তের নিরাপত্তা সুনিশ্চিত হয় শান্তি সম্প্রীতি অটুট থাকে তার জন্যে  সবার সহায়তা কামনা করেন।

বরাক ব্রহ্মপুত্র পাহাড় সমতলের শান্তির জন্যে মা কামাখ্যার কাছে প্রার্থনা জানান মুখ্যমন্ত্রী। এদিন কামাখ্যা ধামে মুখ্যমন্ত্রী ছাড়াও শিল্প মন্ত্রী চন্দ্রমোহন পাটোয়ারী,  পর্যটন নিগমের চেয়ারম্যান জয়ন্ত মল্ল বড়ুয়া প্রমুখ মেলার প্রস্তুতি পর্ব দেখতে যান। অসমের  পৰ্যটন নিগম এবার সারা দেশে মেগা মেলার বিজ্ঞপন দিয়ে প্রচার চালিয়েছে , মন্দির কমিটি আশা করছে এবার  ভক্ত সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়ে দাঁড়াবে  প্রায় ২৮ লাখ, এদিন জয়ন্ত মল্ল বড়ুয়া বলেন, এবার ২০ হাজার মানুষের খওয়া দাওয়া থাকা বিশুদ্ধ জল এবং চিকিৎসার বন্দোবস্ত হয়েছে। তিনি  ভক্তদের পায়ে হেঁটে মন্দির দর্শনের পরামর্শ দেন। মন্দিরে পুরোহিত সমাজের পক্ষে মোহিত শর্মা জানান, ২২ জুন সূর্য্যস্ত পৰ্যন্ত মন্দির খোলা থাকবে,  পুজোর পর রাত ১ টা ৪০ মিনিট, ১৮ সেকেন্ডে প্রবৃত্তি শুরু হবে মন্দিরের দ্বার বন্ধ হবে, ২৬  জুন ভোর ৬ টায় মন্দির খুলবে নিবৃত্তি ২ টা ৪ মিনিটে । জয়ন্ত মল্ল জানান, ২১ জুন সোনারাম ময়দানে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রহ্লাদ পটেল, সংগীত শিল্পী কৈলাশ খের দেবী বন্দনা করবেন। মুখ্যমন্ত্রী সহ বিশিষ্ট  ব্যাক্তিরা উপিস্থিত থাকবেন। দেশের লাখ লাখ  ভক্তর সমাবেশের নিরাপত্তা সুর্নিশ্চিত করতে পুলিশ সব ধরনের ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে। প্রায় ৩০০ সি সি ক্যামেরা বসানো হয়েছে। আকাশে নিরাপত্তা দেখতে ড্রোন উড়বে। সবুজ পাহাড় নীলাচল আর তিনদিন পরেই লাখ লাখ  ভক্তপ্রাণ দেশ বিদেশের মানুষের পা পড়বে। ২১ জুন যোগ দিবসের দিন কয়েক হাজার নাগা সন্নাসী কামাখ্যা মন্দিরে মেলায় এসে যোগ ধ্যান করবেন। মা কামাখ্যার আশীর্বাদ নিয়ে  ধন্য হয়ে ফিরে যাবেন। 





No comments

Powered by Blogger.