Header Ads

অনিৰ্দিষ্টকালের রেল অবরোধের দরুন ডিমা হাসাও জেলার রেল স্টেশন গুলিতে ১৪৪ ধারা জারি জেলাপ্রশাসনের

বিপ্লব দেব,  হাফলংঃ ডিমা হাসাও জেলায় রেল স্টেশন চত্বর রেলের সীমানা রেল ট্র্যাকের আশপাশ এলাকা গুলিতে সিআরপিসির অধীনে জেলাপ্রশাসন ১৪৪ ধারা জারি করেছে। লামডিং-শিলচর ব্রডগেজ প্রকল্পের কাজ করতে গিয়ে ডিমা হাসাও জেলার নিউহাফলং থেকে নিউহারাঙ্গাজাও পর্যন্ত প্রায় ৫০টি গ্রামের ৫০০ পরিবারের কৃষি জমি ও বসতবাড়ি নষ্ট হওয়ার জেরে দীর্ঘদিন থেকে উত্তরপূর্ব সীমান্ত রেল কর্তৃপক্ষের এই ৫০০ পরিবারকে ক্ষতিপূরণ মিটিয়ে দেওয়ার দাবি জানিয়ে আসছে এন সি হিলস ইন্ডিজেনাস স্টুডেন্টস ফোরাম। কিন্তু উত্তর পূর্ব সীমান্ত রেল কর্তৃপক্ষ তাদের এই দাবি নিয়ে তেমন গুরুত্ব না দেওয়ায় এন সি হিলস ইন্ডিজেনাস স্টুডেন্টস ফোরাম বৃহস্পতিবার সকাল ৫ টা থেকে অনিৰ্দিষ্টলের জন্য পাহাড় লাইনে রেল অবরোধের ডাক দেয়। জেলাশাসক অমিতাভ রাজখোয়া ছাত্র সংগঠনটির সভাপতি ডেভিড কেভমের সঙ্গে বৈঠকে বসে রেল অবরোধ প্রত্যাহার করে নেওয়ার আহ্বান জানালে ছাত্র সংগঠনটি এতে রাজি হয়নি বরং তারা তাদের সিদ্ধান্তে অনড় থাকে। ডেভিড কেভম বলেন রেল কর্তৃপক্ষ যত সময় পর্যন্ত ক্ষতিগ্রস্থ গ্রামবাসীদের ক্ষতিপূরণ মিটিয়ে না দেয় তারা তাদের সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসবে না বলে জানিয়ে দেন ডেভিড কেভম। তাই বুধবার জেলাশাসক অমিতাভ রাজখোয়া সিআরপিসির অধীনে রেল স্টেশন ও তার আশপাশ এলাকায় ১৪৪ ধারা জারি করেন। এই ধারা অনুসারে রেল স্টেশনে বৈধ টিকিট ছাড়া ৫ জনের বেশী মানুষ জড়ো হতে পারবেন না তাছাড়া রেল স্টেশন চত্বর রেল ট্র্যাকে কোনও ধরনের অবরোধ ধরনা জমায়েত নিষিদ্ধ করা হয়েছে। হাতে অস্ত্র নিয়ে চলাফেরা করতে পারবেনা, মটরসাইকেল বা স্কুটারে একজন ছাড়া দুজন চলাচল করতে পারবে না তবে বৃদ্ধ ব্যক্তি বা ১০ বছরের নীচে থাকা ছাত্রছাত্রীর উপর এই নিষেধাজ্ঞা থকবে না। তবে কেউ যদি এই নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে তাহলে জেলাপ্রশাসন এর বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করবে বলে জেলাশাসক নির্দেশে উল্লেখ করেন।

No comments

Powered by Blogger.