Header Ads

লাউডস্পীকারে আযান দেওয়া ইসলামে অনিবার্য নয় !!

বিশ্বদেব চট্টোপাধ্যায়
এলাহাবাদ হাইকোর্ট শুক্রবার একটি গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত জানিয়ে দেয় --আযান ইসলাম ধর্মের একটি আবশ্যক আর অভিন্ন অংশ হতে পারে, কিন্তু লাউডস্পীকার অথবা তুমুল আওয়াজ বাড়িয়ে অন্য কোন মাধ্যমে আযান দেওয়া ইসলামের আবশ্যিক ও অভিন্ন অংশ হতে পারে না।

আদালত জানায়, এর জন্য কোন পরিস্থিতিতেই রাত ১০টা থেকে সকাল ৬টা পর্যন্ত লাউডস্পীকার বাজানোর অনুমতি দেওয়া যাবে না। আদালত জানায়, ধ্বনি দূষণ মুক্ত ঘুম সবার জীবনের মৌলিক অধিকার। কাউকে নিজের ধর্মীয় অধিকারের জন্য অন্যের মৌলিক অধিকার লঙ্ঘন করার অধিকার দেওয়া যাবে না। উত্তর প্রদেশের গাজীপুরের সাংসদ আফজল আনসারির লাউডস্পীকারে আযান বন্ধ করার বিরুদ্ধে দাখিল একটি পিটিশনের প্রেক্ষিতে আদালত এই সিদ্ধান্ত নেয়।
গাজীপুরের সাংসদ আফজল আনসারি আদালতে আবেদন দাখিল করে বলেছিলেন যে, গাজীপুরের মানুষের ধর্মের মৌলিক অধিকারের সুরক্ষা দেওয়ার জন্য গাজীপুরের মসজিদ থেকে লাউডস্পীকারের মাধ্যমে আযান দিতে দেওয়ার জন্য রাজ্য সরকারকে নির্দেশ দেয় আদালত।
কিন্তু আদালত তার এই আবেদন খারিজ করে দেয়। প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী সালমান খুরশিদও ফারুখাবাদ এবং অন্যান্য জেলার মুসলিমদের পক্ষে এরকম ভাবেই আদালতের দরজায় কড়া নেড়েছিলেন। খুরশিদ বলেছিলেন, আযান ইসলামের একটি অনিবার্য অংশ। তাই মসজিদ থেকে লাউডস্পীকারের মাধ্যমে আযান দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হোক।
উত্তর প্রদেশের যোগী সরকার অনেক দিনে আগেই রাজ্যের মসজিদ গুলোতে লাউডস্পীকারে আযান দেওয়া নিষিদ্ধ করেছে।

No comments

Powered by Blogger.