Header Ads

লকডাউন, কারফিউ চলেছে, এই সময় বন ধ্বংস চলছে, বিধানসভার পুরোনো বিধায়ক হোস্টেলের প্রাচীন গাছ কেটে বসতি করা হাজারো পাখিদের গৃহহীন করার ষড়যন্ত্র



নয়া ঠাহর, গুয়াহাটি : লকডাউন চলছে, রাতে কারফিউ, এই সুযোগ সদ্ব্যবহার করছে চোরা শিকারিরা। কাজিরঙা রাষ্ট্রীয় উদ্যানে এই সময় গন্ডার হত্যা করে চোরাশিকারিরা খড়্গ কেটে নিয়ে পালায়। এই কাজিরাঙাতে ১৫ দিন ধরে আহত এক বুনো হাতি এক জলাশোয়ে পরে থাকলো হাতিটির ঠিক মত চিকিৎসার ব্যবস্থা করেনি, গ্রামবাসীদের অভিযোগ বন বিভাগের বিরুদ্ধে, বিনা চিকিৎসায় মারা যায় হাতিটি। অভিযোগ আসছে কাজিরঙা, মারিগাঁও, নগাঁও প্রভৃতি জেলাতে ব্যাপক হারে গাছ কাটা, নদী থেকে বালি, পাথর তোলা হচ্ছে,  বন বিভাগ কোনো ব্যবস্থা গ্রহণ করছে না। এবার অসম বিধানসভার পুরোনো বিধায়ক হোস্টেলে প্রাচীন গাছগুলোকে কেটে ফেলার অভিযোগ এসেছ প্রকৃতি প্রেমী সংগঠনের কাছ থেকে। কাক, চিল, বক,  চড়ুই, প্যাঁচা,  কাঠ বেড়ালি প্রভৃতি বিভিন্ন প্রজাতির পাখিগুলি সেই প্রাচীন গাছগুলোতে বাসা বেঁধে, সন্তান প্রতিপালন করে,  এখন লকডাউন সময় প্রকৃতি প্রাণ ভরে নিঃশ্বাস নিচ্ছে, মানুষের অত্যাচার নেই। এই সময় গাছগুলোকে কেটে ফেলার ষড়যন্ত্র চলছে। রাজ্যের পুলিশ প্রধানকে গাছ কাটার বিষয়টি জানানো হয়েছে।

No comments

Powered by Blogger.