Header Ads

ভারতে করোনা আক্ৰান্ত ২০০ ছাড়িয়েছে, মৃত্যুর সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৫

নয়া ঠাহর ওয়েব ডেস্কঃ

সারা বিশ্বে করোনা আক্ৰান্তের সংখ্যা বেড়েই চলেছে। মৃত্যু হয়েছে ৯৮০০র ও বেশি। মারণ এই ভাইরাসে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু হয়েছে ইতালিতে। ৩৪০৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। তারপরই চিন। চিনে মৃত্যু হয়েছে ৩২৪৮ জনের। শুক্ৰবার ভারতের রাজস্থানের জয়পুরে করোনা আক্ৰান্ত ইতালির এক পৰ্যটকের মৃত্যু হয়েছে। এনিয়ে ভারতে করোনায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৫। আক্ৰান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ২০৬। শুধু মহারাষ্ট্ৰেই এই ভাইরাসে আক্ৰান্ত হয়েছে ৫২ জন।
 ছবি, সৌঃ আন্তৰ্জাল

 পশ্চিমবঙ্গে করোনা দ্বিতীয় করোনা আক্ৰান্তের খোঁজ মিলেছে। এখন থেকে বিদেশ ফেরত সকলেরই ১৪ দিনের জন্য কোয়ারান্টিনে যেতে হবে। শুক্ৰবার নবান্ন থেকে মুখ্যমন্ত্ৰী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এই নিৰ্দেশ জারি করেন। তার আগে বৃহস্পতিবার দেশে করোনাভাইরাস সংক্ৰমণের চেন ঠেকাতে ২২ মাৰ্চ অৰ্থাৎ রবিবার সকাল ৭ টা থেকে রাত ৯ টা পৰ্যন্ত ‘জনতা কাৰ্ফু’ মেনে চলার ডাক দিয়েছেন। তবে প্ৰয়োজনীয় জরুরি পরিষেবার জন্য যারা এগিয়ে আসবেন তাদের সম্মান জানাতে রবিবার বিকেল ৫ টায় ৫ মিনিট পৰ্যন্ত নিজের বাড়িতে হাততালি কিংবা শঙ্খ বাজানোর আহ্বান জানিয়েছেন প্ৰধানমন্ত্ৰী নরেন্দ্ৰ মোদী। যেহেতু মারণ এই রোগের এখনও পৰ্যন্ত কোনও প্ৰতিষেধক বেড় হয়নি তাই নিরাপদ থাকাটাই সবচেয়ে শ্ৰেয় বলে মনে করছেন চিকিৎসকরা। 

করোনা থেকে বাঁচতে সেযব নিয়ম মেনে চলতে হবে তা এক নজরে দেখে নেওয়া যাকঃ

  •  মুখে রুমাল চাপা দিয়ে হাঁচি-কাশি বাধ্যতামূলক
  • অযথা নাক, মুখ বা চোখে হাত না দেওয়া। দিলেও সাবান দিয়ে ধুয়ে ফেলতে হবে। বাড়িতে থাকলে সাবান দিয়ে হাত ধুয়ে ফেলা উচিত।
  • করমৰ্দন বা জড়িয়ে অভ্যৰ্থনা নয়, দূরত্ব বজায় রেখে নমস্কার করা।
  • দরজা খুলতে হাতের পরিবৰ্তে কনুই দিয়ে খোলা ভাল।
  • করোনা বা কোভিড-১৯ থুতু বা কফের মধ্যে বেশ কয়েক ঘন্টা বেঁচে থাকে। তাই যেখানে সেখানে থুতু ফেলা নিষেধ। 

  • বাইরে থেকে ফিরে সোজা বাথরুমে ঢুকে পোশাক ছেড়ে গরম জলে ভিজিয়ে হাত মুখ ধুয়ে সাবান দিয়ে কাচা পোশাক পরে তবেই ঘরে ঢোকা শ্ৰেয়।

সকলেরই মিলিত প্ৰচেষ্টাতেই করোনাভাইরাসের সংক্ৰমণ ঠেকানো সম্ভব বলে মনে করা হচ্ছে।

No comments

Powered by Blogger.