Header Ads

পৌরসভা নির্বাচনের জন্য রূপরেখা ঠিক করতে কর্মীদের সঙ্গে বৈঠকে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় ও প্রশান্ত কিশোর !!

বিশ্বদেব চট্টোপাধ্যায়ঃ

'এখনই নির্বাচন মনে করে ঝাপিয়ে পড়ুন। গায়ের জোরে ভোট করা যাবে না। কারো জন্য মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ভাবমূর্তি নষ্ট হলে মেনে নেয়া যাবে না। ভোটের দিন লোকাল ক্ষমতাবলে ভোট করা যাবে না।' কলকাতা পুরসভার কাউন্সিলরদের নিয়ে বৈঠক করে এই কথাই বললেন প্রশান্ত কিশোর ও অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। পাশাপাশি দক্ষিণ ২৪ পরগনার বিধায়কদের নিয়ে বৈঠকও হয় আজ। সেখানে উপস্থিত ছিলেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়, প্রশান্ত কিশোর ছাড়াও ববি হাকিম, পার্থ চট্টোপাধ্যায় দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলা সভাপতি শুভাশিস চক্রবর্তী। 

সূত্রের খবর, কাউন্সিলরদের দুটি করে দিদিকে বল কর্মসূচি দেয়া ছিল তাদের আরও দুটি করে দিদিকে বল কর্মসূচি করতে হবে এবং বিধায়কদের চলতি মাসের মধ্যেই দশটি করে কর্মসূচি শেষ করার নির্দেশ দিলেন দলীয় নেতৃত্ব।বৈঠকে দিদিকে বল কর্মসূচির পাশাপাশি দলীয় সংগঠনকে চাঙ্গা করতে এবং এলাকা সংশ্লিষ্ট মানুষ ও বিশিষ্টজনদের কাছে বারেবারে যাবার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। তাদের কি কি সমস্যা আছে তা জেনে তার সমাধান কত দ্রুত করা যায় তারও নির্দেশ দেয়া হয়েছে বৈঠক।
এছাড়া এলাকার দলীয় পার্টি অফিসে দৈনন্দিন মিটিং এবং ভোটার লিস্টের যা কাজকর্ম রয়েছে সেগুলো সংশ্লিষ্ট এলাকার দায়িত্বপ্রাপ্ত কাউন্সিলর, এমএলএ দের নির্দিষ্ট ভাবে ভাগ করে দিতে বলা হয়েছে।ভোটার লিস্টে নাম তোলার কাজ, নতুন ভোটারদের নাম যাতে বাদ না যায় এবং সংশোধনের কাজ দ্রুত করতে দলীয় দায়িত্বপ্রাপ্তদের এলাকার বিডিও’র সঙ্গে যোগাযোগ রাখার নির্দেশ।
এমআরসি এবং সিএএ রাজ্যে করতে দেবেন না তৃণমূল নেত্রী ঘোষণা করেছেন। সেইমতো বাড়িতে বাড়িতে জনসংযোগের পাশাপাশি সরকার এবং তৃণমূল কংগ্রেস যে তাদের পাশে আছে সেটা বোঝানোর নির্দেশ দেয়া হয়েছে।
শীর্ষ নেতৃত্বের আরও নির্দেশ, 'লবি করে টিকিট পাওয়া যাবে না। দামী গাড়ি ও গয়না ব্যবহার না করার পাশাপাশি  নিজের ও দলের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করুন, দল সকলের দিকে নজর রাখছে, মানুষের পাশে থাকলে জনসংযোগ ঠিক থাকলে যোগ্য ব্যক্তি সবাই টিকিট পাবেন, উন্নয়নের ব্যাপারে এবং জনসংযোগ-এর ব্যাপারে কোন রং দেখবেন না !

No comments

Powered by Blogger.