Header Ads

মহিলা সবলীকরন :ওদালগুরির ভারত ভুটান সীমান্তের ডিমাকুচিতে প্রথম মহিলা বাজার " অসমী মহিলা হাটের "শুরু


দেবযানী, গুয়াহাটি
বাজার দেখা বা বাজার করা সাধারণ কথা।আমরা সবাই কখনো না কখনো বাজারে যাই। কোথাও সকালে বা বিকেলে বাজার বসে, কোথাও বা সপ্তাহের বাজার বসে।কিন্তু এমন একটা বাজারের কথা হয়তো খুব কম লোকেই জানে যেখানে মহিলারা রান্না ঘরের কাজকর্ম বাদ দিয়ে  নিজেদের বাড়ির বাগানের উৎপাদিত জিনিস বিক্রি করতে বের হয়ে এসেছে বেচা কেনা করতে।  কোথায় আরম্ভ হয়েছে এই সাপ্তাহিক মহিলার  বাজার? উদালগুরি মহকুমার অন্তর্গত ডিমাকুচিতে ভারত ভুটান সীমান্তে  সম্প্রতি শুরু হয়েছে মহিলাদের একমাত্র বাজার "অসমী মহিলা হাট "।পানেরী সমষ্টির  বিধায়িকা এই সাপ্তাহিক বাজারের উদঘাটন করেন। এই বাজারে ভারত ভুটান সীমান্ত বিভিন্ন স্থান থেকে ক্রয়-বিক্রয় করতে আসেন মহিলারা। 
                                        


পুরুষের সাথে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে যাতে মহিলারা স্বাবলম্বী হতে পারে তার উদ্দেশ্যেই সপ্তাহের প্রত্যেক মঙ্গলবারে বসবে এই হাট বাজার। এই অঞ্চলে বাস করা অসমিয়া বাঙালী, নেপালী, বড়ো, আদিবাসী ইত্যাদি বিভিন্ন জনগোষ্ঠীর স্থানীয় খাদ্যের সাথে নিজের ঘরের বাগানে জৈবিক পদ্ধতিতে উৎপাদিত শাকসবজির সাথে বিভিন্ন আচার পাওয়া যাবে এই বাজারে। কেবল এই নয় বিভিন্ন জনজাতির নিজের হাতে তৈরি করা পোশাকের সাথে মাছ মাংসও বাজারে বিক্রি করছেন মহিলারা।এখানে মহিলারা নিজে স্বাবলম্বী হওয়ার সাথে সাথে বিভিন্ন জনগোষ্ঠীর সমন্বয় পরিণত হবে এই বাজার । 
                                           



ভেরগাঁও খন্ড উন্নয়ন অধিকারী মনোজ কুমার বনিয়ার  সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত বাজারের উদ্বোধনী সভাতে ডিমাকুচি উন্নয়ন সমিতির  সম্পাদক মনসুমা বড়ো, সমাজকর্মী শশীপ্রভা দেবীর সাথে অনেক গণ্যমান্য ব্যক্তিরা উপস্থিত ছিলেন। ভেরগাও ব্লকের উদ্যোগে আরম্ভ করা অসমী মহিলা হাটবাজারে ভুটান থেকে ভুটিনী মহিলারাও  এই বাজারের   জিনিস কিনতে ও বিক্রি করতে আসবেন।

No comments

Powered by Blogger.