Header Ads

পৃথক বড়ো ল্যান্ডের দাবিতে বিটিসি উত্তাল, ক্যাব ঘোষণায় আন্দোলন শুরু

অমল গুপ্ত, গুয়াহাটি : কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমত শাহ রাজ্যে এসে ক্যাব ঘোষণা করার পর থেকে বিভিন্ন দল সংগঠন ক্যাব বিরোধী আন্দোলনে পথে নেমেছে। জাতীয়তাবাদী যুব ছাত্র পরিষদ মঙ্গলবার অমিত শাহের কুশপুতুল দাহ করেছে লখিমপুরে। এনআরসিতে ব্যাপক কারচুপির অভিযোগে  আজও রাজ্যের বিভিন্ন জায়গায় তালিকা ছুটদের বিক্ষোভ আন্দোলন অব্যাহত রয়েছে। তামূলপুর, নগরাজুলি, কালাইগাঁও প্রভৃতি অঞ্চলের হিন্দু বাঙলি, নেপালি, কোচরাজবংশী সম্প্রদায়ের ভূমিপুত্র এনআরসি প্রধান প্রতীক হাজেলার কুশপুতুল জ্বালায়।
এই ডামা ডোলের মধ্যে বিটিসি অধীন চিরাং জেলায় প্রায় ১০  হাজার আবসু, এনডিএফবি'র আলোচনাপন্থী গোষ্ঠী এবং  পিপলস জয়েন্ট একশন কমিটির সদস্য পৃথক বড়োল্যান্ডের দাবিতে নিম্ন অসম উত্তাল করে তোলে। আবসু সভাপতি প্রমোদ বড়ো জম্মু কাশ্মীর এবং তেলেঙ্গানার মতো রাজ্য দাবি করেন। বলেন, ১৯৬৭ সাল থেকে তারা পৃথক বড়োল্যান্ডর দাবি করে আসছে। হাজার আন্দোলনকারী মাথা নেড়িয়ে  স্লোগান দেয় "নো বড়োল্যান্ড নো রেস্ট"। এনআরসি'র তালিকায় হাজার খিলঞ্জিয়া, বড়ো মানুষের নাম নেই বলেও অভিযোগ করে। তালিকা ছুট কোচ রাজবংশী সম্প্রদায়ের  সংগঠনের পক্ষ থেকে লাগাতার আন্দোলনের হুমকি দেওয়া  হয়েছে।
আজ  এনআরসি কর্তৃপক্ষ বিজ্ঞপ্তি জারি করে জানিয়েছে  আগামী ১৪ সেপ্টেম্বর থেকে অনলাইনের মাধ্যমে সব পরিবার নিজেদের নাম দেখতে পারবে, তবে যাদের নাম বাদ পড়েছে, তাদের প্রত্যেকের বাড়িতে নাম বাদ পড়ার কারণ জানিয়ে প্রতিলিপি পাঠানো হবে। তবে কবে থেকে পাঠানো হবে তার তারিখ জানানো হয়নি।

No comments

Powered by Blogger.