Header Ads

আন্তর্জাতিক মঞ্চে মুখোমুখি ভারত ও পাকিস্তান, চড়ছে উত্তেজনার পারদ

বিশ্বদেব চট্টোপাধ্যায় : কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা বিলোপের পর পাকিস্তানের সঙ্গে ভারতের সম্পর্ক একেবারে তলানিতে এসে ঠেকেছে। আক্রমণের একটি সুযোগও একে অপরকে কেউ ছাড়ে না। এই পরিস্থিতিতে একই মঞ্চে মুখোমুখি হতে চলেছে এই দুই দেশের রাষ্ট্রপ্রধানরা। রাষ্ট্রপুঞ্জের সাধারণ সভায় একই মঞ্চে ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এবং পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান।
আগামী ২৭ সেপ্টেম্বর আমেরিকায় বসছে রাষ্ট্রপুঞ্জের সাধারণ সভা। সেখানেই পর পর ভাষণ দেবেন যুযুধান দুই দেশের প্রধান। ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ভাষণ দেওয়ার পরেই ভাষণ দেওয়ার কথা পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের। সূত্রের খবর এই সাধারণ সভার মঞ্চে কাশ্মীর ইস্যুতে কথা বলতে পারেন ইমরান খান। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর পরিকল্পনা অবশ্য অন্য। কাশ্মীর নিয়ে ভারত নিজে থেকে একটি কথাও বলবে না। কারণ কাশ্মীর নিজে কোনও তৃতীয় পক্ষের হস্তক্ষেপ যে একেবারেই বরদাস্ত করা হবে না। সেকারণেই আন্তর্জাতিক মঞ্চে কাশ্মীর নিয়ে কথা বলতে নারাজ ভারত।
ইতিমধ্যেই ভারতের বিরুদ্ধে কাশ্মীর ইস্যুতে রাষ্ট্রপুঞ্জে তদবির শুরু করে দিয়েছে পাকিস্তান। রাষ্ট্রপুঞ্জের নিরাপত্তা পরিষদের বৈঠকে এই প্রসঙ্গেই উত্থাপন করতে চলেছে পাকিস্তান। এমনটাই জানা গিয়েছে। ভারতও তার মোকাবিলায় প্রস্তুতি সেরে রেখেছে। কোনওভাবেই পাকিস্তানকে কাশ্মীর ইস্যুতে জায়গা ছাড়া যাবে না এমননীতি নিয়েই এগোচ্ছে রাষ্ট্রপুঞ্জে ভারতের প্রতিনিধিরা।
আমেরিকায় রাষ্ট্রপুঞ্জের সাধারণ সভায় অংশ নেবেন ১১২টি দেশের রাষ্ট্রপ্রধানরা। ইতিমধ্যেই ৪৮টি দেশের প্রধান এবং ৩০ জনেরও বেশি বিদেশমন্ত্রী পৌঁছে গিয়েছেন সেখানে। ২৪ তারিখ থেকে শুরু হবে সভা। চলবে ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত। ২৭ তারিখ এক মঞ্চে ভাষণ দেওয়ার কথা ভারত এবং পাকিস্তানের। সেই দিকেই এখন তাকিয়ে আছে গোটা বিশ্ব। কাশ্মীর সিদ্ধান্তের পর এই প্রথম আন্তর্জাতিক মঞ্চে মুখোমুখি হচ্ছেন মোদী-ইমরান। সেখানে পাকিস্তান কী বক্তব্য রাখে তার অপেক্ষাতেই রয়েছে ভারত।

No comments

Powered by Blogger.