Header Ads

অসমের সোনারীতে লোকেরা বাঘকে মেরে কেটে নিল তার অঙ্গ প্রত্যঙ্গ

নয়া ঠাহর প্রতিবেদন, সোনারীঃ চরাইদেও জেলার সোনারীর বরহাটের ভেচেলিগ্রামের একাংশ স্থানীয় লোক শুক্রবার একটি বাঘকে মেরে কেটে নিল তার বাঘটির অঙ্গ প্রত‍্যঙ্গ।  বাঘটি এলাকাতে অনেকদিন ধরে সন্ত্রাস সৃষ্টি করে আসছিল ও এলাকার অনেক পশুকে মেরে ফেলেছিল । শুক্রবার বাঘটি এলাকার নিলেশ্বর সাংমা নামে একজন স্থানীয় লোককে আক্রমণ করে ফলে গুরুতরভাবে আহত হয় নিলেশ্বর । পরে তাঁকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। এই ঘটনার ফলে উত্তেজিত হয়ে পড়ে গ্রামের একাংশ লোক এবং  তারা বাঘের সন্ধানে হাতে লাঠি  নিয়ে বেরিয়ে আসে। পরে স্থানীয় লোকেরা বাঘটিকে  তাড়া করে হত্যা করে । এরপর বাঘটির লেজ , নখ , ঠ্যাং ও অন্যান্য অঙ্গপ্রত্যঙ্গ কেটে নেয়। একাংশ স্থানীয়় লোকেরা বাঘটিকে মেরে খাবার চেষ্টা করেছিল । এরপর অনেক দেরি করে বন বিভাগের লোকরা উপস্থিত হয়ে মৃত বাঘটিকে গ্রামবাসীদের কবল থেকে উদ্ধার করে নিয়ে যায়। ওদিকে নুমলিগড়ে একটি দেড় বছরের হাতির শাবক গর্তে  পড়ে গিয়ে কাদায় আটকে পড়ে। চিৎকার শুনে স্থানীয় লোকেরা বহু চেষ্টার পর হাতির শাবকটিকে  গর্ত থেকে উদ্ধার করতে সক্ষম হয়। এরপর তাকে স্নান করিয়ে উপযুক্ত চিকিৎসার ব্যবস্থা করে স্থানীয় লোকেরা  পরে বন বিভাগের হাতে তুলে দেয়। ওদিকে কার্বি আংলং জেলাতে একটি  মৃত হাতির  শ্রাদ্ধ করে স্থানীয় লোকেরা । হাতির আত্মার শান্তিতে কামনায় পূজা-পার্বণ করা হয়। উল্লেখ্য যে বনাঞ্চল ধ্বংসের ফলে দিন -দিন অস্তিত্বের সংকটে পড়ে গেছে বন্য প্রাণীরা। খাদ্যের সন্ধানে এরা লোকালয়ে চলে  আসে ও  মানুষের শিকার হয়ে যায় । এভাবে বহু বন‍্য পশুর মৃত্যু ঘটছে।

No comments

Powered by Blogger.