Header Ads

রাজ্যসভার দুটি আসনে বিনা প্ৰতিদ্বন্দ্বিতায় জয়লাভের পথে অগপ-এর বীরেন্দ্ৰ প্ৰসাদ বৈশ্য এবং বিজেপি কামাখ্যা প্ৰসাদ তাসা

বিধানসভার নিৰ্বাচনে বিজেপির টাৰ্গেট ১০০টি আসন


অমল গুপ্ত : অসমে রাজ্যসভার দুটি আসনে বিনা প্ৰতিদ্বন্দ্বিতায় জয়ী হতে চলেছেন অগপ-এর প্ৰাক্তনমন্ত্ৰী বিরেন্দ্ৰ প্ৰসাদ বৈশ্য এবং বিজেপির সদ্য বিদায়ী সাংসদ কামখ্যাপ্ৰসাদ তাসা৷ কংগ্ৰেস এবং এ আই ইউ ডি এফ কোন মনোনয়ন পত্ৰ দাখিল না করে শাসক দলকে আসন দুটি সহজেই ছেড়ে দিলেন৷ মুখ্যমন্ত্ৰী সৰ্বানন্দ সনোয়াল, অৰ্থমন্ত্ৰী হিমন্ত বিশ্ব শৰ্মা, অগপ সভাপতি অতুল বরা, বিপিএফের মন্ত্ৰী চন্দন ব্ৰহ্ম প্ৰমুখের উপস্থিতিতে আজ শাসকপক্ষের দুই প্ৰতিনিধি মনোনয়ন পত্ৰ দাখিল করলেন৷ সরকারীভাবে ঘোষণা করা হয়নি যদিও এদেরকে বিজয়ী ঘোষণার শুধু আনুষ্ঠানিকতা বাকী৷ এ আই ইউ ডি এফ প্ৰধান বদদ্দিন আজমল কংগ্ৰেস সভাপতি রাহুল গান্ধী এবং অগপ সভাপতি অতুল বরাকে চিঠি দিয়ে রাজ্য সভায় একটি আসনে তাদেরকে সমৰ্থন করার জন্য আৰ্জি জানিয়েছিলেন৷ কিন্তু কোন সাড়া পাননি৷ কংগ্ৰেসের ২৫জন বিধায়ক এবং এ আই ইউ ডি এফের ১৩জন বিধায়ক আছে৷ এই দুই দল মিলে ৩৮জন বিধায়ক হচ্ছেন, কিন্তু রাজ্য সভার আসনে জয় লাভের জন্য প্ৰয়োজন ৪৩টি ভোট৷ বিজেপি, অগপ এবং বিপিএফ মিলেও ৮৬জন হবেনা৷ কয়েকজনের দ্বিতীয় পছন্দের ভোট এবং বিরোধীদের কয়েকজনের সাহায্য নিয়ে বিজেপি সহজেই জয়লাভ করতে পারবে৷ এই দুটি আসনে প্ৰাক্তন প্ৰধানমন্ত্ৰী মনমোহন সিং এবং কংগ্ৰেস নেতা শান্তিয়াজ কুজুর ছিলেন৷ আগামী ১৪ জুন তাদের কাৰ্যকালের সমাপ্তি ঘটবে৷ আগামী ৭জুন এই দুটি আসনে ভোট হবে৷ এই নিৰ্বাচনকে কেন্দ্ৰ করে বরাক উপত্যকায় বিজেপির অন্দরমহলে ব্যাপক অসন্তুষ্টির সৃষ্টি হয়েছে৷ বিজেপির এক সূত্ৰ জানান, মুখ্যমন্ত্ৰী সৰ্বানন্দ সনোয়াল বিজেপির প্ৰাক্তন বিধায়ক তথা বিশিষ্ট নেতা মিশন রঞ্জন দাসকে রাজ্যসভায় পাঠানোর প্ৰতিশ্ৰুতি দিয়েছিলেন৷ সেই প্ৰতিশ্ৰুতি অনুযায়ী মিশন মনোনয়ন পত্ৰ দাখিল করেন৷ কিন্তু বিজেপি তার নামটিও উচ্চারণ করেনি৷ বরাক বিজেপির অভিযোগ, কেবল চা জনগোষ্ঠীকে খুশি করার জন্য বিজেপির একাধিক প্ৰতিনিধিকে সাংসদ পদে বসানো হল, অথচ রাজ্যের অন্যতম গরিষ্ঠ সংখ্যক বাঙালী হিন্দু, যাদের ভোটে বিজেপির জয়জয়কার তাদেরকে গুত্বহীন করে দেওয়া হচ্ছে৷ এদিকে আজ উৎফুল্লিত মুখ্যমন্ত্ৰীর উপস্থিতিতে অৰ্থমন্ত্ৰী তথা নেডার আহ্বায়ক হিমন্ত বিশ্ব শৰ্মা ঠারেঠোরে জানিয়ে দিলেন আগামী বিধানসভার নিৰ্বাচনে তাদের টাৰ্গেট ১০০টি আসন৷ তিনি আজ রাহুল গান্ধীর সমালোচন করে বলেন, কংগ্ৰেসের দিন শেষ৷ রাহুলকে হারিয়ে সাড়া দেশে চৰ্চিত বিজেপির হবু মহিলা মন্ত্ৰী স্মৃতি ইরানী আজ কামাখ্যা মন্দিরে আশীৰ্বাদ নেওয়ার পর মুখ্যমন্ত্ৰী ও অন্যান্যদের সংগে সাক্ষাৎ করেন৷

No comments

Powered by Blogger.