Header Ads

মাধ্যমিক ও হাই মাদ্রাসা পরীক্ষাতে নকল করলে তিন বছরের জন্যে বহিস্কার, স্পর্শকাতর পরীক্ষা কেন্দ্রে জামার বসছে, সোমবার থেকে পরীক্ষা


অমল গুপ্ত, গুয়াহাটি : আগামীকাল সোমবার থেকে সেবার অধীনে মাধ্যমিক ও হাইমাদ্রাসা চূড়ান্ত পরীক্ষা শুরু হবে। এবার 3 লক্ষ 58 হাজার ছাত্রছাত্রী পরীক্ষায় বসবে। এবার পরীক্ষার কিছু কড়া নিয়ম নীতি লাগু করা হবে। একবার নকল হাতেনাতে ধরা পড়লে তিন বছর পর্যন্ত আর পরীক্ষায় বসতে পারবে না। বহিস্কার করা হবে। 860টি কেন্দ্রে পরীক্ষা হবে। স্পর্শকাতর কেন্দ্রে জামার বসানো হবে। এই অত্যাধুনিক ব্যবস্থার ফলে  100 মিটারের মধ্যে বোমা ফিট করলেও তা বিস্ফোরিত হবে না। প্রতিটি কেন্দ্রে সি সি ক্যামেরা লাগানো হবে। ছাত্রছাত্রীদের নীল কালিতে নয় কালো কালির কলম দিয়ে পরীক্ষায় লিখতে হবে। পরীক্ষা শুরুর সময় দুজন পরীক্ষককে সাক্ষী রেখে প্রশ্নপত্রের প্যাকেট খোলা হবে। প্রশ্নপত্র ফাঁস রুখতে এই ব্যবস্থা হয়েছে। গত শনিবার উচ্চমাধ্যমিক শ্রেণীর ছাত্রছাত্রীদের জন্যে ভাষা নিয়ে কয়েকটি প্রস্তাব গ্রহণ করা হয়েছে। শিক্ষক, বুদ্ধিজীবীদের বৈঠকে উচ্চ মাধ্যমিক শ্রেণীতে এতদিন ঐচ্ছিক বিষয় হিসাবে ইংরেজি ভাষা ছিল, তা এবার তুলে দিয়ে অন্য যেকোনো 11টি ভাষার মধ্যে 1 টি নিতে পারবে,  বাংলা,  বড়ো, উর্দ্দু, করবি, প্রভৃতি ভাষা নিয়ে পড়তে পারবে। অসমীয়া ভাষা তো থাকবেই, অসমীয়া ভাষায় একটি সাবজেক্ট বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। শনিবারের বৈঠকের প্রস্তাব চূড়ান্ত নয়, পরে বিভিন্ন জনের অভিমত নিয়ে তা চূড়ান্ত হবে। ইংরেজির প্রভাব কমাতে এবং মাতৃভাষাকে গুরুত্ব দেবার জন্যে এই প্রস্তাব নেওয়া হচ্ছে, তবে অসমীয়া ভাষায় একটি সাবজেক্ট বাধ্যতামূলক তা আগেই চূড়ান্ত হয়েছে।

No comments

Powered by Blogger.