Header Ads

ভারত-পাক চাপানউতোর, নিরাপত্তার খাতিরে অনিৰ্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ দেশের বেশ কয়েকটি বিমানবন্দর

নয়া ঠাহর প্ৰতিবেদন, নয়াদিল্লিঃ সোমবার ভোররাতে পাক অধিকৃত কাশ্মীরের বালাকোটে ভারতীয় বায়ুসেনার স্ট্ৰাইকের একদিন পরই বুধবার সাতসকালে ভারতের পুঞ্চ এবং রজৌরি সেক্টরে আকাশ পথে পাকিস্তানের যুদ্ধবিমান ঢুকে পড়ে। এই খবর পেয়েই দেশের ৮টি বিমানবন্দর অনিৰ্দিষ্ট কালের জন্য বন্ধ করে দেওয়ার নিৰ্দেশ দিয়েছে নয়াদিল্লি। নিষিদ্ধ করা হয়েছে দিল্লির উত্তর আকাশে সমস্ত রকমের উড়ান। পাশাপাশি নৌ এবং বায়ুসেনা প্রধানের সঙ্গে জরুরি বৈঠকে বসেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। অন্য দিকে নর্থ ব্লকে দেশের গোয়েন্দা সংস্থার প্রধানের সঙ্গে বৈঠক করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিংহ। জানা গিয়েছে ইসলামাবাদ সহ দেশের পাঁচটি বিমানবন্দর বন্ধ রেখেছে পাকিস্তানও। বুধবার সকাল সকালই ভারতের কাছে খবর  আসে আকাশসীমা লঙ্ঘন করে পাকিস্তানের যুদ্ধবিমান ঢুকে পড়ছে ভারতের আকাশে। ভারত এই হামলার জন্য প্রস্তুতও ছিল। ভারতীয় বায়ুসেনা একটি এফ-১৬ যুদ্ধবিমান গুলি করে নামিয়ে দেয়। এদিন নিরাপত্তার খাতিরে জম্মু ও কাশ্মীর এবং পঞ্জাবের ক্ৰমে শ্রীনগর, লে এবং জম্মু, চন্ডীগড় এবং অমৃতসর বিমানবন্দর সমস্ত বন্ধ করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় কেন্দ্ৰ। বিভিন্ন আন্তর্জাতিক উড়ানও এই এলাকার বিমানবন্দরে না নামিয়ে ঘুরিয়ে দেওয়া হয় দেশের অন্যান্য নিরাপদ বিমানবন্দর দিয়ে। একের পর এক বেসরকারি বিমানসংস্থাও বিমান বাতিলের খবর জানিয়ে দেয় যাত্রীদের। জানা গিয়েছে শ্রীনগর, লে, জম্মু, চন্ডীগড়, অমৃতসর, জয়শলমেঢ়, দেহরাদুন বিমানবন্দর আপাতত তিন মাস বন্ধ রাখার নির্দেশ জারি করা হয়েছে। অন্য দিকে পাকিস্তানের লাহোর, মূলতান, ফয়জলাবাজ, শিয়ালকোট এবং ইসলামাবাদ বিমানবন্দরেও সমস্ত উড়ান বন্ধ রাখার কথা জানিয়েছে পাকিস্তানও। 

No comments

Powered by Blogger.