Header Ads

শৈক্ষিক এবং গবেষণার ক্ষেত্ৰে অসম বিধানসভাকে উচ্চাসনে প্ৰতিষ্ঠিত করার চেষ্টা করা হবেঃ হিতেন্দ্ৰ নাথ গোস্বামী


গুয়াহাটিঃ অসমের মেধা সম্পন্ন ছাত্ৰ-ছাত্ৰীদের সংসদীয় গণতন্ত্ৰ তথা অসম বিধানসভার কাৰ্য পরিচালনা সম্পৰ্কে সম্যক আভাস দেওয়ার লক্ষ্যে অসম বিধানসভার অধ্যক্ষের উদ্যেগে নতুন শীৰ্ষক ‘স্পীকার ইনেসিয়েটিভ'-এর ২০ জন ছাত্ৰ-ছাত্ৰীকে নিয়ে ইণ্টারশিপ কৰ্মসূচী আজ থেকে প্ৰবৰ্তন করা হয়। অধ্যক্ষ হিতেন্দ্ৰ নাথ গোস্বামী এই কৰ্মসূচীর সূত্ৰপাত করে বলেন, শৈক্ষিক এবং গবেষণার ক্ষেত্ৰে অসম বিধানসভাকে উচ্চাসনে প্ৰতিষ্ঠিত করার চেষ্টা করা হবে। তিনি বলেন, যুব প্ৰজন্ম রাজনীতিতে আসতে চাই না। বিধানসভার গুরুত্বও বুঝতে পারে না। নব প্ৰজন্মকে আইন রক্ষক বিধানসভার প্ৰতি আগ্ৰহী করে তোলার জন্য চেষ্টা করা হবে। আজ বিধানসভার সেণ্ট্ৰাল হলে মুখ্যমন্ত্ৰীর প্ৰেস উপদেষ্টা হৃষীকেশ গোস্বামী, বিরোধী দলপতি দেবব্ৰত শইকীয়া, বিধানসভার প্ৰধান সচিব মৃগাংক কুমার ডেকা, সংসদীয় পরিক্ৰমা বিভাগের সহকারী মুখ্যসচিব এ কে সিং, বিধায়ক পবিন্দ্ৰ ডেকা প্ৰমুখদের উপস্থিতিতে ইণ্টারশিপে সুযোগ পাওয়া ২০জন ছাত্ৰ-ছাত্ৰীকে পরিচয় করে দেওয়া হয়। প্ৰেস উপদেষ্টা হৃষীকেশ গোস্বামী বলেন, বিধানসভার অধ্যক্ষ গোস্বামী ক্ষমতায় বসেই রাজ্যে বিধানসভায় নতুনত্ব আনছেন। ইণ্টারশিপের ফলে ছাত্ৰ-ছাত্ৰীদের মধ্যে আত্মবিশ্বাস গড়ে উঠবে। প্ৰজেক্ট কনসালটেণ্ট হিসাবে বিশিষ্ট সাংবাদিক সুমদ্ৰ গুপ্ত ক্যাশপ জানান, ৩০০জন ছাত্ৰ-ছাত্ৰীদের মধ্যে থেকে ২০জনকে মেধার ভিত্তিতে নিৰ্বাচন করা হয়েছে। অসমের বিভিন্ন জলন্ত সমস্য সম্পৰ্কে ৫০ পৃষ্ঠার প্ৰতিবেদন দাখিল করতে হবে। সংসদীয় পরিক্ৰমা বিভাগের সহকারী মুখ্যসচিব এ কে সিং বলেন, ছাত্ৰ-ছাত্ৰীরা প্ৰতিবেদন পেশ করার পর তা পুস্তক আকারে প্ৰকাশের ব্যবস্থা হবে, এবং বিধানসভার দৈনন্দিন কাৰ্যক্ৰম সম্পৰ্কে সম্যক ধারণা দেওয়ার জন্য বিধানসভার অধিবেশন দেখার সুযোগ করে দেওয়া হবে। বিধানসভার সহকারী সচিব অমরেন্দ্ৰ ডেকা অনুষ্ঠানের সমাপ্তি ঘোষণা করেন।ইণ্টারশিপে সুযোগ পাওয়া ছাত্ৰ-ছাত্ৰীরা হলেন, প্ৰাজ্ঞ দেব, হাফিজুর রহমান, জাগৃতি বরুয়া, সুদৰ্শিনা বরা, ফারহা ইয়াসমিন রহমান, ভাস্বতী বরদলৈ,  ধানমনি কলিতা, বাহারুল ইসলাম, সুমন কুমারী জয়সোয়াল, অংগস্বয়া বরদলৈ, শেখর জ্যোতি শৰ্মা তারা সবাই পোষ্ট গ্ৰ্যাজুয়েট পৰ্যায়ের, বাকিরা হলেন আণ্ডার গ্ৰ্যাজুয়েট তারা হেচ্ছন, তানভি রিতি ঠাকুর, বিশাখা জাজোদিয়া, অরনাভ বরুয়া, করিস্মা শইকীয়া, চন্দ্ৰওয়ালি গোস্বামী, অমৃতা পি দাস, নাদিয়া ফারুকী, রাজকুমার গগৈ, সৌরভ ঝুনঝুনওয়ালা এবং লক্ষ্যজিৎ বরুয়া।

No comments

Powered by Blogger.