Header Ads

সেবা ভারতী জনজাতি ছাত্রাবাসের দশম বার্ষিক উৎসব

দেবযানী পাটিকর, গুয়াহাটিঃ গুয়াহাটি মহানগরের আদিঙগিরির শংকর নগরের সেবা ভারতীর কামাখ্যানগর চ্যারিটেবল এবং ধার্মিক ছাত্রাবাসের দশম বার্ষিক উৎসব সম্পন্ন হল। দিন জোড়া কার্যসূচিতে রবিবারের অনুষ্ঠানে ছাত্রাবাসের ছাত্ররা শারীরিক ব্যায়াম প্রদর্শন করে। সেইসঙ্গে মল্লখাম্ভ প্রদর্শন করে। প্ৰসঙ্গত, মল্লখাম্ভ কর্ণাটক, মহারাষ্ট্র ইত্যাদি রাজ্যে খেলা হয় । এটি একটি প্রাচীন পরম্পরাগত খেলা যেখানে বিভিন্ন যোগ মুদ্রা প্রদর্শন করা হয়। এরসঙ্গে ছাত্ররা তলোয়ার যুদ্ধের প্রদর্শনীও করে। পিছিয়ে পড়া উপজাতি ছাত্রদের পড়াশোনা করা তথা থাকার ব্যবস্থার জন্য সেবা ভারতী এই জনজাতি  ছাত্রাবাসের স্থাপন করে ২০১০ সালে। এখানে ছাত্রদের শিক্ষা গ্রহণ করার সাথে সাথে শারীরিক, মানসিক, আর্থিক, বৌদ্ধিক, সামাজিক , বিকাশের শিক্ষা দেওযার সাথে ধার্মিক গ্রন্থ যেমন গীতা পড়ানো হয়। কামাখ্যানগর ট্রাস্টের সভাপতি প্রণব কুমার বড়ো বলেন- এই ছাত্রাবাসে ৩৭জন ছাত্র রয়েছে, এরা সকলেই এখানে থেকে পড়াশোনা করে হাই স্কুল পরীক্ষা ভালো নম্বর নিয়ে পাশ করেছে। এবার এখান থেকে ৫ জন ছাত্র বোর্ড পরীক্ষা দেবে। বেশিরভাগ ছাত্র এখান থেকে পড়াশোনার সাথে কারিগরী শিক্ষার প্রশিক্ষণ নিতে পারে তার জন্য সেবা ভারতী এই ছাত্রাবাসের আরও ৫০ টি আসন তৈরির চিন্তাভাবনা করছে। প্রোটেকশন ফর চাইল্ড রাইটস-এর চেয়ারম্যান প্রিয়ঙ্ক কানুনগো বলেন- আজকে ছাত্র কালকের ভবিষ্যৎ। সেজন্য কিশোরদের উপযুক্ত শিক্ষার সঙ্গে সঙ্গে তাদের শারীরিক ও মানসিক শিক্ষা দেওয়া জরুরি। এখানে পাঁচ রাজ্যের ১৪ জেলার ছাত্ররা থেকে পড়াশুনা করছে। তাদের বাঁশের বিভিন্ন সামগ্রী তৈরির প্রশিক্ষণ ও কম্পিউটার প্রশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে। এতে আশপাশের ছাত্ররাও লাভবান হচ্ছে। এর ফলে পুরো এলাকারও পরিবর্তন হচ্ছে। এলাকায় বেশিরভাগ মানুষই বিভিন্ন জনজাতির। ছাত্রাবাসের ছাত্রদের এখানে অনুশাসনের সঙ্গেসঙ্গে স্বাবলম্বী হওয়ার শিক্ষা দেওয়া হয়। তিনি আরো বলেন- আধুনিকতার সাথে সংস্কারের ফিউশন হওয়া জরুরি। এই অনুষ্ঠানে উদযাপন সমিতির সভাপতি যাদব চন্দ্র ডেকা, রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সংঘের অসম ক্ষেত্রের ক্ষেত্র প্রচারক ড০ উমেশ চন্দ্র চক্রবর্তী, রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সংঘের ক্ষেত্র প্রচারক উল্লাশ কুলকার্নি সাথে এলাকার অনেক গণ্যমান্য লোকেরা উপস্থিত ছিলেন।

No comments

Powered by Blogger.