Header Ads

ওপার বাংলার ভোট, বিপুল সংখ্যা গরিষ্ঠতা নিয়ে ফের ক্ষমতায় আসতে চলেছে আওয়ামী লীগ



ননী গোপাল ঘোষ, শিলং-- আশঙ্কার মেঘ ছিলই। সেই আশঙ্কাই সত্য হল বাংলাদেশের ভোটে। খবর লেখা অবধি ভোটের  দিনে সারা বাংলাদেশ জুড়ে হিংসার বলি হলেন ১৪ জন। মৃতদের তালিকায় আওয়ামী লীগ, বিএনপি কর্মীরা ছাড়াও রয়েছে সাধারণ ভোটারও। রবিবার ভোররাতে চট্টগ্রামের বাঁশখালী কাঠারিয়া ইউনিয়নের একটি বিদ্যালয়ের সামনে যূযুধান দুই    রাজনৈতিক দলের সংঘর্ষ ঠেকাতে গেলে পুলিশের অস্ত্র খোয়া যায়। এদিন সকালেই পুলিশ অস্ত্রগুলি উদ্ধার করে। এই ঘটনায় মারা যান একজন। রাজশাহী, চট্টগ্রাম, কুমিল্লা, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, কক্সবাজার, রাঙামাটি, নরসিংদী, বগুড়া, গাজীপুর, সিলেটে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। বেলট বাক্স লুট, বুথ দখলের খবর পাওয়া গিয়েছে।
বিরোধীপক্ষ ইসলামি আন্দোলন দলের যুগ্ম মহাসচিব এটিএম হেমায়েতউদ্দীন এই নির্বাচনকে নির্বাচনের নামে তামাশা হয়েছে বলে জানিয়েছেন। বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন সরকার এভাবে নির্বাচন করে জাতিকে দীর্ঘদিনের জন্য সমস্যায় ফেলবে। এটা দেশের জন্য বড় ক্ষতি হয়ে গেল। বাংলাদেশের মুখ্য নির্বাচন কমিশনার কেএম নুরুল হুদার অবশ্য দাবি দু'একটি আসনে বিচ্ছিন্ন ঘটনার খবর পাওয়া গেলেও ভোটগ্রহণ মোটের উপর শান্তিপূর্ণ হয়েছে।
 জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের (জাসদ) সভাপতি ও তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেন সারা দেশে নৌকার জোয়ার উঠেছে। এই জোয়ারের কারণেই মহাজোটের প্রার্থীরা বিপুল ভোটের ব্যবধানে জয়ী হতে যাচ্ছেন। এদিকে গোপালগঞ্জ -৩ আসনে বিপুলভোটে জয়ী হয়েছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। খবর লেখা অবধি শাসক আওয়ামী লীগের প্রার্থীরা মোট ৩০০ আসনের মধ্যে ১২৯ আসনে এগিয়ে অথবা জয়ী। প্রধান বিরোধী বিএনপি মাত্র ২-টি আসনে জয়ী হতে পেরেছে।

No comments

Powered by Blogger.