Header Ads

মহাত্মা গান্ধীর জন্মদিনে জনসম্পর্ক অভিযানের সূচনা


পলি প্রীতম
জাতির পিতা মহাত্মা গান্ধীর জন্মদিনে ভারতীয় কংগ্রেসের উদ্যোগে সারা ভারতে শুরু হল জনসম্পর্ক অভিযান।
আগামী ১৯ শে নভেম্বর ইন্দিরা গান্ধীর জন্মদিন পর্যন্ত  এই অভিযানে বিগত দিনের কংগ্রেস সরকারের সাফল্য এবং বর্তমান বি.জে.পি. পরিচালিত কেন্দ্রীয় সরকারের ব্যর্থতা এবং জনবিরোধী নিতী সমূহ নিয়ে সাধারন জনতার মধ্যে সচেতনতা বৃদ্ধির কর্মসূচী নেওয়া হয়েছে। লামডিং পৌর ব্লক কংগ্রেস আয়োজিত গান্ধীজীর জন্মদিন উপলক্ষে তাঁর প্রতিকৃতিতে পুষ্পার্ঘ নিবেদন করেন প্রদেশ কংগ্রেস কমিটির সদস্যা মায়া চক্রবর্তী, প্রক্তন বিধায়ক তথা ভাষিক সংখ্যালঘু সেল এর রাজ্যিক চেয়ারম্যান স্বপন কর, পৌর ব্লক সভাপতি বিশ্বজিত রায় চৌধুরী, উপ সভাপতি তথা প্রাক্তন চেয়ারম্যান মানিক দে সহ রত্নেশ্বর রায়, মানিক গুপ্ত, ঝুলন প্রভা রায় চৌধুরী, সঞ্জীব পাল প্রমুখ। উপস্থিত ছিলেন যুব কংগ্রেস, মহিলা কংগ্রেস এবং এন. এস. ইউ. আই. র সদস্যবৃন্দ।'আচ্ছে দিন' এর প্রতিশ্রুতি দিয়ে ক্ষমতা দখল করার পর বর্তমান কেন্দ্রীয় সরকার কতৃক গৃহীত নানান সরকারী কর্মসূচীর ফলে সাধারন জনতার নাভিশ্বাস উড়েছে বলে সভায় বক্তারা মত প্রকাশ করেন। সারা দেশে অরাজগতা, সাম্প্রদায়িক বিভেদ, পেট্রল ডিজেল সহ অত্যাবশ্যকীয় দ্রব্যের অস্বাভাবিক মূল্যবৃদ্ধি, বেকার সমস্যা, নোটবন্দি, জি.এস.টি. র মত সিদ্ধান্ত, কৃষকদের মধ্যে হাহাকার ইত্যাদির বিরুদ্ধে সর্বত্র প্রচার অভিযান চালানোর উপর জোর দেন বক্তারা।পৌর ব্লক সভাপতি বিশ্বজিত রায় চৌধুরী বলেন যে উপরোক্ত বিষয় নিয়ে প্রচার অভিযান চালানোর জন্য রাজ্যের ২৭১ টি ব্লকে গঠন করা হয়েছে ব্লক কো-অর্ডিনেশন কমিটি। লামডিং পৌর ব্লকে দেবাশীষ দে, লামডিং গ্রামীন ব্লকে সুবাস রায় এবং উদালী ব্লকে ননীগোপাল দাস কো-অর্ডিনেটর নির্বাচিত হয়েছে বলে তিনি জানান।

No comments

Powered by Blogger.