Header Ads

ডিজিপি জেলা ঘূরে পুলিশ জনগণের মধ্যে বন্ধু্ত্বপূর্ণ সম্পৰ্ক তৈরি করছেঃ চন্দ্ৰমোহন পাটোয়ারি


পুলিশ ঘরে বসে গল্পের মতো কেস ডায়েরি লেখে অভিযোগ মামুন ইমদাদুল হক চৌধুরীর
লিটারে ৫ টাকা তেলের দাম কমালে বিজেপি নেতাদের গলায় গামছা পড়াবোঃ রকিবুল হোসেন।

অমল গুপ্ত, গুয়াহাটিঃ
সৰ্বানন্দ সনোয়াল নেতৃত্বাধীন বিজেপি জোট সরকারের আমলে রাজ্যের শান্তি শৃংঙ্খলার উন্নতি ঘটেছে। বিভিন্ন পরিসংখ্যান তুলে ধরে গৃহবিভাগের ভারপ্ৰাপ্ত মুখ্যমন্ত্ৰীর পক্ষে সংসদীয় পরিক্ৰমা মন্ত্ৰী চন্দ্ৰমোহন পাটোয়ারি আজ বিধানসভায় এই দাবি করে বলেন, মুখ্যমন্ত্ৰীর নিৰ্দেশ ক্ৰমে রাজ্যের পুলিশ প্ৰধান কুলধর শইকিয়া এবং মুখ্যসচিব রাজ্যের প্ৰত্যেকটি জেলায় নিয়মিত যাচ্ছেন এবং গ্ৰাম-অসমের আইন শৃংঙ্খলার পরিস্থিতির পৰ্যালোচনা করছেন। এই তো কয়েক দিন আগে ডিজিপি বরাক উপত্যকায় গিয়েছিলেন, এবার হোজাই-লামডিং যাবেন। পুলিশ প্ৰশাসনের সঙ্গে আম জনতার দূরত্ব সৃষ্টি হয়েছে বলে এআইইউডিএফ বিধায়ক মামুন ইমদাদুল হক চৌধুরী ১৯৩৯ সালে স্যার সাদুল্লা সাহেবের এক প্ৰতিবেদন উল্লেখ করে বলেন, তখনই বলা হয়েছিল আম জনতার সঙ্গে পুলিশেরব্যবধান বেড়ে গেছে, আজও সেই ব্যবধান চলছে। সেই প্ৰসঙ্গ তুলে ধরে সংসদীয় পরিক্ৰমা মন্ত্ৰী বলেন, এই সরকারের সময় আম জনতার সঙ্গে পুলিশের বন্ধু্ত্বপূর্ণ সম্পৰ্ক তৈরি হয়েছে। মহিলাদের বিরুদ্ধে নিৰ্যাতনের ঘটনা ক্ৰমশ বেড়ে চলেছে। বিরোধী দলের এই অভিযোগ খণ্ডন করে পুলিশ বিভাগের ছাঁটাই প্ৰস্তাবের বিতৰ্কে অংশ গ্ৰহণ করে চন্দ্ৰমোহন বটদ্ৰবায় এক ছাত্ৰীর ধৰ্ষণ করে হত্যার ঘটনা উল্লেখ করে বলেন, এই ঘটনায় ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে অপরাধীকে করায়ত্ত করে তিন মাসের মধ্যে তার ফাঁসির আদেশ দিয়েছেন। সরকারের নিৰ্দেশক্ৰমে গঠন করা ফ্ৰাষ্টট্ৰেক কোৰ্ট সেই আদেশ দিয়ে দৃষ্টান্ত স্থাপন করে ভারতে রেকৰ্ড গড়েছেন। মুখ্যমন্ত্ৰী রাজ্যে ‘সব কা সাথ সবকা বিকাশ'-এর লক্ষ্য নিয়ে কাজ করে যাচ্ছেন। পুলিশ প্ৰশাসনকে অত্যাধুনিকভাবে  গড়ে তোলার লক্ষ্যে দেরগাঁওয়ে পুলিশ এ্যকাডেমি গড়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। শুধু পুলিশ প্ৰশাসনকে আজ জনতার পাশে থাকতে বলছেন না, মুখ্যমন্ত্ৰী তিনি নিজেও এই প্ৰথম ভারত বাংলাদেশ সীমান্তে দুদিন কাটিয়ে এসেছেন, যা এর আগে কোনও সরকারের সময়ে ভাবায় যেত না, তাই মুখ্যমন্ত্ৰীকে ধন্যবাদ দিতেই হবে। সিভিল পুলিশকে শক্তিশালী করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। কংগ্ৰেস রাজত্বের সমালোচনা করে বলেন, বৰ্তমান সরকারের সময় পুলিশের সঙ্গে উগ্ৰপন্থীদের কোনও গোপন আঁতাত নেই। সাহসিকতার সঙ্গে উগ্ৰপন্থীদের মোকাবিলা করতে গিয়ে একজন এএসআই জীবন আহুতি দিলেন। ১৯৫১ সালে হিতেশ্বর শইকিয়া অয়েল ইণ্ডিয়ার কয়েকজন অপহৃত অফিসারের মুক্তির বিনিময়ে ছজন আলফা নেতাকে ছাড়িয়ে দেওয়ার ব্যবস্থা করেছিলেন। সেই কাজকে সমৰ্থন করে চন্দ্ৰমোহন বলেন, প্ৰফুল্ল কুমার মহন্ত সরকার ক্ষমতাসীন হওয়ার পরেই রাজ্য থেকে ডিজিপিসহ কয়েকজন অফিসার পালিয়ে গেলেন। তার ভায়ের এবং মন্ত্ৰী নগেন শইকিয়া উগ্ৰপন্থীদের হাতে নিহত হলেন। তার পরেই মহন্ত সরকার আলফার বিরুদ্ধে জেহাদ ঘোষণা করেন। সেই সরকার কেন্দ্ৰ থেকে ৯০ঃ১০ আনুপাতিক হারে কেন্দ্ৰীয় সাহায্য পেতে শুরু করে। অৰ্থনীতির উত্তোরণ শুরু হয়, এশিয়ান ডেভেলপমেণ্ট ব্যাঙ্কে ঋণ পাওয়া যায়। সেই সময় পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্ৰী জ্যোতি বসু অসমের রাস্তা ঘাট দেখে বলেছিলেন– ‘তোমাদের রাস্তাঘাট তো ভালো দেখছি আমাদের রাজ্যে রাস্তা ঘাট ভালো নয়।' জ্যোতি বসুর দেওয়া সেই প্ৰশংসার কথা বলেন, চন্দ্ৰমোহন পাটোয়ারি। বিজেপি সরকারই ‘ইষ্ট ওয়েষ্ট করিডর' নিৰ্মাণ করে তার স্বপে®র প্ৰকল্পকে বাস্তবায়িত করেছিলেন। বিধানসভায় পুলিশে বিভাগে ছাটায় প্ৰস্তাবের বিতৰ্কে অংশ গ্ৰহণ করে কংগ্ৰেস দলের উপনেতা রকিবুল হোসেন বিভিন্ন যুক্তি তুলে ধরে বিভিন্ন সংবাদ পত্ৰের খবরের উদ্ধৃতি দিয়ে সরকারকে বেকায়দায় ফেলেন। তিনি অসম পুলিশের ভূয়শী প্ৰশংসা করে বলেন, অসম পুলিশের সুনাম আছে সততা নিষ্ঠা আছে, কিন্তু এক শতাংশ পুলিশের অপরাধের জন্য পুলিশ বিভাগের সব পুলিশের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠছে। পুলিশ বিভাগ ছেড়ে রকিবুল গ্যাস সিলিণ্ডারের অস্বাভাবিক মূল্য বৃদ্ধি, ২ লক্ষ বেকারের চাকরি দেওয়ার মিথ্যা প্ৰতিশ্ৰুতির কথা তুলে ধরে সাধারণ গরিব শ্ৰমিজীবি মানুষের অসহনীয় পরিস্থিতির কথা তুলে ধরেন। তিনি বিজেপির বিরুদ্ধে সিণ্ডিকেট রাজের অভিযোগ করেন, কয়লা কেলেঙ্কারী সুপারি কেলেঙ্কারী প্ৰভৃতির অভিযোগ সংবাদ পত্ৰগুলিতে প্ৰকাশ পেয়েছে।  সেই সংবাদ পত্ৰগুলির উদ্ধৃতি দেন। বলেন, এই সরকারের কথার সঙ্গে কাজের মিল নেই। আলফা আগে বন্দুক দেখিয়ে টাকা পয়সা তুলতো এখন মোবাইলের মাধ্যমে টাকা তোলে। তিনি বিজেপি সরকারের কাছে পেট্ৰোল ডিজেলের অন্তত ৫ টাকা কমানোর জন্য দাবি জানান। তিনি বলেন, তা যদি সরকার করতে পারে তবে বিজেপি নেতাদের গলায় গামছা পড়াবো। আমার দল খারাপ পেলেও আমি গামছা পড়াবো। আজই কেন্দ্ৰীয় অৰ্থ মন্ত্ৰী অরুণ জেটলি প্ৰতি লিটারে পেট্ৰোল ডিজেলের আড়াই টাকা কমানোর সিদ্ধান্ত ঘোষণা করেন। তিনি দিল্লীতে সাংবাদিক সন্মেলনে জানিয়েছেন, পেট্ৰোল ডিজেলের আবকারী শুল্ক দেড় টাকা হ্ৰাস করা হয়েছে. অয়েল মাৰ্কেটিং কোম্পানিগুলি হ্ৰাস করবে এক টাকা, রাজ্যে সরকারগুলোকে আড়াই টাকার শুল্ক হ্ৰাস করার আহবান জানিয়েছেন জেটলি। কেন্দ্ৰের আহবানে সাড়া দিয়ে আড়াই টাকা আবকারী শুল্ক হ্ৰাস করার সম্ভাবনা আছে। তা করলে সাৰ্বিকভাবে পেট্ৰোল ডিজেলের মূল্য লিটারে প্ৰতি ৫ টাকা হ্ৰাস পাবে। কংগ্ৰেসের এক মুখপাত্ৰ বলেন, বিধানসভায় রকিবুল হোসেনের দাবি কাৰ্যত মেনে নিলেন কেন্দ্ৰ। আজ বিধানসভায় বিরোধী দলপতি দেবব্ৰত শইকিয়া পুলিশ বিভাগের ১৫,৯১৮ কোটি টাকার ছাটাই প্ৰস্তাবের বিতৰ্কে অংশ গ্ৰহণ করে বলেন, পুলিশ বিভাগে সব রাজ্যে থেকে অসমে ৫ শতাংশ বেশি অৰ্থ ব্যয় করা হয়। এখনও পুলিশের ১৬-১৭ শতাংশ পদ খালি পড়ে আছে। মহিলা শিশুদের নিরাপত্তার অভাব আছে, পুলিশ অপরাধীদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করে মাত্ৰ ১২ শতাংশ হারে। এআইইউডিএফ-এর হাফিজ বসির আহমেদের পক্ষে নাওঁবৈসার বিধায়ক মামুন ইমদাদুল হক চৌধুরী চাঁচাছোলা ভাষায় পুলিশ বিভাগের সমালোচনা করে বলেন, পুলিশ তদন্ত করতে যায়না, ঘরে বসে ডায়রী লেখে গল্প লেখার মতো, তাদের গোপন সেবা অৰ্থাৎ গোয়েন্দা বিভাগ খুবই দুৰ্বল, প্ৰায় ব্যৰ্থ হয়েছে বলা যায়। পশ্চিমবঙ্গে পুলিশ বিভাগ আছে পৃথক পুলিশমন্ত্ৰী আছে। অসমে গৃহ বিভাগের অধীনে পুলিশ বিভাগ। বিভিন্ন পরিসংখ্যান তুলে ধরে বলেন, গত দুবছরে ৮৪ হাজার ৭৯৫টি অপরাধ সংঘটিত হয়েছে। শিশু পাচার চক্ৰ ভয়ংঙ্কর ভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে। ধৰ্ষণ, অপহরণের ঘটনাও ভয়ানক ভাবে বেড়ে গেছে। অৰ্থমন্ত্ৰী হিমন্ত বিশ্ব শৰ্মার এক মন্তব্য স্মরণ করিয়ে দিয়ে বলেন, হিমন্ত বলেছেন ‘পুলিশ আর ফেস অফ গভৰ্ণমেণ্ট’ পুলিশ বিভাগ সেই মুখ রক্ষা করতে পারছেন না। বিজেপির পদ্ম হাজরিকা অসম পুলিশের প্ৰশংসা করে বলেন, সৰ্বনন্দ সনোয়াল সরকার পুলিশ বিভাগকে শক্তিশালী করে তুলেছেন। কংগ্ৰেসের নন্দিতা দাস রাজ্যের মহিলারা আদৌ সুরক্ষিত নয় বলে সরাসরি অভিযোগ করে বলেন, রাজ্যে ৬৪ মহিলা সেল আছে। কিন্তু পরিকাঠামো নেই। পুলিশ বিভাগে ৯০০০ পদ খালী আছে। ফরেনসিক ল্যাবোরেটরি ৪২ টি পদ খালি। শিমুলগুড়ি, মরিয়ানি ষ্টেশনে মহিলা হত্যাকাণ্ড ঘটে গেল কিন্তু সিসিটিভিগুলি খারাপ ছিল। তিনি বলেন, জলপথগুলিকে সন্ত্ৰাসবাদীরা ব্যবহার করছে। সেগুলির ওপর দৃষ্টি দেওয়ার দাবি জানান। অগপর প্ৰদীপ হাজরিকা অভিযোগ করেন, অপরাধমূলক কৰ্মকাণ্ডের দিক থিকে অসমের স্থান দ্বিতীয়, গুয়াহাটি মহানগরের নিরাপত্তা নেই, জেহাদী কাৰ্যকলাপ বেড়ে যাচ্ছে, আন্তৰ্জাতিক পৰ্যায়ের জেহাদীরা প্ৰবেশ করছে অসমে। পুলিশকে অত্যাধুনিক ভাবে গড়ে তোলার দাবি জানান। অধ্যক্ষ হিতেন্দ্ৰ নাথ গোস্বামী মন্তব্য করেন, ‘অ্যালাৰ্মিং'। কংগ্ৰেসের রেকিবুদ্দিন আহমেদ রাজ্যের পুলিশ প্ৰধান কুলধর শইকিয়াকে একজন সাহিতি্যক বলে প্ৰশংসা করে বলেন, জলপুলিশকে শক্তিশালী করা দরকার, পুলিশ আয়নার মতো, তিনি শ্ৰীমন্ত শঙ্করদেবকে অপমান করা ব্যক্তিকে কঠোর সাজা দেওয়ার দাবি জানিয়ে শঙ্করদেবের গানের এক পংক্তি শুনিয়ে দেন। অগপর রমেন্দ্ৰ নারায়ণ কলিতার পক্ষে সত্যব্ৰত কলিতা পুলিশের ভাবমূৰ্তি উজ্জ্বল করার ওপর জোর দেন। তিনি বলেন, সবক্ষেত্ৰে পুলিশকে দুন¹তিগ্ৰস্থ বলে অভিযোগ করা হয়। সাইবার ক্ৰাইমকে শক্তিশালী করার দাবি জানান। বলেন, মন্ত্ৰীদের গাড়ী ১২০ কিলোমিটার বেগে ছোটে। মন্ত্ৰীর কনভয়ের পিছনে পুলিশের এস্কট গাড়ীর কোনও স্পীড নাই। গাড়ীগুলি ভাঙাচোরা। আজ বিধানসভায় সময়ের অভাবে অধ্যক্ষ হিতেন্দ্ৰ নাথ, গোস্বামী অৰ্থমন্ত্ৰী হিমন্ত বিশ্ব শৰ্মা উত্থাপিত অসম বিনিয়োজন বিল,২০১৮ এবং অন্যান্য কৰ্মসূচীগুলি গিলোটিন প্ৰয়োগ করে পাশ করিয়ে দেন।

No comments

Powered by Blogger.